ভর্তি তথ্য

ভর্তি পরীক্ষায় ‘সাম্প্রদায়িক’ প্রশ্ন নিয়ে সমালোচনায় রাবি

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

পাঁচের বদলে চার অপশনে ক্ষোভ

ঢাবি প্রতিনিধি,১৫ সেপ্টেম্বর: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষে ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদভুক্ত ‘গ’ ইউনিটের অধীনে প্রথম বর্ষ সম্মান শ্রেণিতে ভর্তি পরীক্ষার প্রশ্নপত্রে প্রতিটি প্রশ্নের বিপরীতে চারটি অপশন রাখা হয়েছে।

অথচ ইতোপূর্বে এই ইউনিটে প্রতিটি প্রশ্নের বিপরীতে পাঁচটি করে অপশন রাখা হতো। আর প্রতিটি ভুল প্রশ্নের জন্য কাটা হতো ০.২৪ নম্বর। অথচ এবার অপশন কমিয়ে আনা হলেও ‘নেগেটিভ মার্ক’ আগের মতোই রাখা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্য ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষার নিয়ম অনুযায়ী প্রতিটি ভুলের জন্য ০.৩০ নম্বর করে কাটা হয়। তারা প্রতিটি প্রশ্নের বিপরীতে চারটি করে অপশন দিয়ে থাকে।

অপশন কমিয়ে আনা হলেও ‘নেগেটিভ মার্ক’ কেন আগের মতো রাখা হয়েছে- এমন প্রশ্নের জবাবে ‘গ’ ইউনিট ভর্তির কমিটির আহ্বায়ক ও ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. শিবলী রুবাইয়াতুল ইসলাম জাগো নিউজকে বলেন, এটাতো পরীক্ষার আগেই হয়েছে নতুন কিছু না। আর আমরা ০.৩০ কাটবো না ০.২৪ কাটবো তাতে কী আসে যায়। আগের নিয়ম কিংবা অন্য ইউনিটের সঙ্গে তুলনা করার তো কোনো প্রয়োজন নেই। এটার তো কোনো ‘রুলস’ নেই। আগে চারটা ছিল এবার পাঁচটা অপশন, এটা কোনো সমস্যা না।

এ দিকে প্রশ্নপত্রের মধ্যেও ছিল কয়েক জায়গায় সমস্যা। অনেক ভর্তিচ্ছু দাবি করেছেন, পরীক্ষা কেন্দ্রে তাদের দেয়া প্রশ্নপত্রের মধ্যে ম্যানেজমেন্ট অংশ ছিল না। পরে অবশ্য তা সংশোধন করে দেয়া হয়েছে।

মাহবুবুর রহমান নামে এক শিক্ষার্থী বলেন, প্রশ্নপত্রে যদি অপশন কমানো হয় তাহলে নেগেটিভ মার্কও অন্যান্য ইউনিটের মতো ০.৩০ করা উচিৎ ছিল। কারণ, আমি একটি প্রশ্নের সঠিক উত্তর দিলাম অথচ অন্য একজন ভুল উত্তর দিয়েও তার সঙ্গে আমার পার্থক্য বেশি হচ্ছে না; যা কর্তৃপক্ষের আগেই ভাবা উচিৎ ছিল।

অন্যদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি ওয়েবসাইটে অন্য চারটি ইউনিটের ভর্তি নির্দেশিকা দেয়া থাকলেও ‘গ’ ইউনিটের ভর্তি নির্দেশিকা দেয়া হয়নি।

অন্যান্য ইউনিট তাদের নির্দেশিকায় প্রতিটি প্রশ্নের বিপরীতে কতটি অপশন থাকবে এবং প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য কত নম্বর কাটা যাবে তা স্পষ্ট করলেও ‘গ’ ইউনিট সেটি করেনি। তাই এটি নিয়েও রয়েছে ভর্তিচ্ছুদের মধ্যে নানা মত।

এদিকে সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত সুষ্ঠুভাবে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। কোথাও কোনো জালিয়াতির খবর পাওয়া যায়নি।

ভর্তি পরীক্ষা শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ এম আমজাদ সাংবাদিকদের বলেন, কোনো ধরনের জালিয়াতির ঘটনা ছাড়াই পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। সকলের সতর্কতার কারণে এটি সম্ভব হয়েছে। আর প্রথমবারের মতো বিশ্ববিদ্যালয়ের বাইরের কেন্দ্রগুলোতে মেটাল ডিটেক্টর ব্যবহার করায় জালিয়াত চক্র আরও ব্যর্থ হয়েছে।

সকাল সাড়ে ১০টার দিকে উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান কেন্দ্র পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সকলের স্বপ্নের জায়গা। পরীক্ষা সুষ্ঠুভাবে চলছে। কেউ জালিয়াতি করতে চাইলে ধরা পড়বে। ভ্রামমাণ আদালতও সক্রিয় রয়েছে।

উল্লেখ্য, গ-ইউনিটে ১ হাজার ২৫০টি আসনের বিপরীতে ২৯ হাজার ৯৫৪ জন ভর্তিচ্ছু ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ঢাবির ‘গ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা সম্পন্ন

ঢাবি প্রতিবেদক:

ঢাবি: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদভুক্ত ‘গ’ ইউনিটের অধীনে বিজনেস স্টাডিজ অনুষদে ১ম বর্ষ স্নাতক সম্মান শ্রেণীর ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

শুক্রবার সকাল ১০টায় এ পরীক্ষা শুরু হয়। চলে বেলা ১১টা পর্যন্ত।

এবার ‘গ’ ইউনিটের এক হাজার দুই শত ৫০ আসনের বিপরীতে আবেদনকারীর সংখ্যা ২৯ হাজার তিন শত ১১ জন, যা প্রতি আসনের বিপরীতে প্রায় ২৪ জন।

বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ও ক্যাম্পাসের বাইরের মোট ৫৩টি কেন্দ্রে ‘গ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়।

এদিকে শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদভুক্ত ‘চ’ ইউনিটের অধীনে ১ম বর্ষ বিএফএ সম্মান শ্রেণীতে ভর্তি পরীক্ষা (সাধারণ জ্ঞান) অনুষ্ঠিত হবে।

সকাল ১০টা থেকে ১১টা পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয় চারুকলা অনুষদসহ ক্যাম্পাসের মোট ১১টি কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হবে। চ-ইউনিটে ১৩৫টি আসনের বিপরীতে ভর্তিচ্ছু আবেদনকারীর সংখ্যা ১৩ হাজার ৪৭২।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স ১ম বর্ষের ভর্তি ২৪ আগস্ট

ডেস্ক,১৩ জুন: আগামী ২৪ আগস্ট থেকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত কলেজসমূহে অনার্স ১ম বর্ষের ভর্তি কার্যক্রম শুরু হবে। ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরু হবে ১৫ অক্টোবর। সোমবার উপাচার্য অধ্যাপক ড. হারুন অর রশিদের সভাপতিত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি কমিটির সাধারণ এক সভায় এ সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়।

সভায় জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত কলেজগুলোতে ২০১৭-২০১৮ শিক্ষাবর্ষের ১ম বর্ষ সম্মান ভর্তি কার্যক্রম শুরু, আসন সংখ্যা, ভর্তিকৃত শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরু বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা করা হয়।

সভায় উপ-উপাচার্য চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো. মশিউর রহমান, ট্রেজারার অধ্যাপক মো. নোমান উর রশীদ, সকল ডিন, রেজিস্ট্রার, পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক, পরিচালক আইসিটি প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন ।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

মনোনীত হয়েও ভর্তিতে আগ্রহী নন ২ লাখ শিক্ষার্থী

নিজস্ব প্রতিবেদক,১০জুন: পছন্দ না হওয়ায় মেধাতালিকায় সুযোগ পেয়েও দুই লাখের অধিক শিক্ষার্থী কলেজে ভর্তি হতে অনীহা প্রকাশ করেছেন।

মনোনীত হয়েও যারা কলেজ বয়কট করেছেন তাদের বিষয়ে নতুন সিদ্ধান্ত নেয়ার কথা ভাবা হচ্ছে। শনিবার আন্তঃশিক্ষা বোর্ড সূত্রে এমন তথ্য জানা গেছে।

জানা যায়, ৬ জুন থেকে ৮ জনু রাত ১২টা পর্যন্ত কলেজে ভর্তির নিশ্চয়নের সময় নির্ধারণ করা হয়। আশানুরূপ নিশ্চয়ন না হওয়ায় সময় বাড়িয়ে ১০ জুন দুপুর ১২টা পর্যন্ত সুযোগ দেয়া হয়। কিন্তু এরপরও দুই লাখ ১২ হাজার শিক্ষার্থী ভর্তি হতে আগ্রহ দেখাননি।

এ বিষয়ে আন্তঃশিক্ষা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক আশফাকুস সালেহীন বলেন, প্রথম মেধাতালিকায় নির্বাচিত হওয়ার পরও যারা ভর্তি হননি তারা নতুন করে আবেদন করতে পারবেন।

তবে, প্রথম মেধাতালিকায় মনোনীত থাকার পরও এত শিক্ষার্থী কেন কলেজ নিশ্চয়ন করেনি তা খতিয়ে দেখা হবে বলেও জানান তিনি।

আশফাকুস সালেহীন বলেন, আগামীকাল রোববার এ বিষয়ে একটি সভা ডাকা হয়েছে। সভায় নিশ্চয়ন না করা শিক্ষার্থীদের জন্য নতুন সিদ্ধান্ত নেয়া হতে পারে। প্রায় সকল আবেদনকারী একাধিক কলেজ পচ্ছন্দ দিয়েছেন। কেউ যদি নতুন করে আর আবেদন না করেন তবে তার জন্য দ্বিতীয় পচ্ছন্দের কলেজ পরবর্তী মেধাতালিকায় দেয়ার সিদ্ধান্ত হতে পারে।

প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে ভর্তি নিশ্চিত করতে হলে নিশ্চয়ন প্রক্রিয়া অবশ্যই সম্পন্ন করতে হবে। এক্ষেত্রে টেলিটক, ডাচ-বাংলা ব্যাংকের রকেট ও শিওর ক্যাশের মাধ্যমে শিক্ষা বোর্ডের রেজিস্ট্রেশন ফি বাবদ ১৮৫ টাকা দিয়ে ভর্তি নিশ্চয়ন বা নিশ্চিত করতে হবে। আবেদনের সকল প্রক্রিয়া ও নির্দেশনা স্ব স্ব শিক্ষা বোর্ড ও ভর্তির ওয়েবসাইটে (www.xiclassadmission.gov.bd) প্রকাশ করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ৬ জুন থেকে কলেজ ভর্তির প্রথম মেধাতালিকায় স্থান পাওয়া ১২ লাখ ৪৯ হাজার ৮৪৮ শিক্ষার্থীর নিশ্চয়ন বা বুকিং প্রক্রিয়া শুরু হয়।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় : মাস্টার্স ভর্তির মেধা তালিকা প্রকাশ ১৩ জুন

অনলাইন ডেস্ক | জুন ০৮, ২০১৭

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষের মাস্টার্স (প্রফেশনাল) ভর্তির মেধা তালিকা ১৩ জুন প্রকাশ এবং ১৬ জুলাই থেকে ক্লাস শুরু হবে।
ভর্তি কার্যক্রমে এল এল বি ১ম পর্ব, পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিপ্লোমা ইন জার্নালিজম, পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিপ্লোমা ইন লাইব্রেরি এন্ড ইনফরমেশন সায়েন্স, এমএসসি ইন কম্পিউটার সায়েন্স, মাস্টার অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশন (এমবিএ) ও এমবিএ ইন অ্যাপারেল মার্চেন্ডাইজিং কোর্সসমূহের মেধা তালিকা প্রকাশিত হবে। বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ কথা বলা হয়।

এতে বলা হয়, ওইদিন বিকেল ৪ টা থেকে এসএমএসের মাধ্যমে ফলাফল পাওয়া যাবে। SMS এর জন্য মেসেজ অপশনে গিয়ে nuatpmroll no লিখে ১৬২২২ নম্বরে Send করে ফল জানা যাবে এবং রাত ৯ টায় ওয়েবসাইট www.nu.edu.bd/admissions থেকে জানা যাবে।

অন্যদিকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৫ সালের মাস্টার্স ১ম পর্ব পরীক্ষার ফরম পূরণের সময় আগামী ১৫ জুন পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

সারাদেশে একাদশে ভর্তি, দুইদিনে দুই লাখ আবেদন

নিজেস্ব প্রতিবেদক: ১১ মে নানা ভোগান্তির মধ্যদিয়ে সারাদেশে একাদশে ভর্তির জন্য প্রায় দুই লাখ আবেদন জমা পড়েছে। আবেদনের সময় সার্ভার সমস্যা, ফিরতি এসএমএস না পাওয়া প্রধান সমস্যা ছিল বলে অভিযোগ ভুক্তভোগীদের। একাধিক আবেদনকারী অভিযোগ করে বলেন, সারাদিন একাধিকবার চেষ্টার পরও আবেদন করতে সক্ষম হননি।

সার্ভার সমস্যা, মোবাইলে এসএমএস পাঠালে ফিরতি উত্তর না পাঠানোসহ নানা ভোগান্তির পর কেউ কেউ সফল হচ্ছেন, আবার কারও আবেদন অসম্পূর্ণ রয়ে যাচ্ছে। ফলে অাবেদন অসম্পূর্ণ থাকায় অনেকে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন।

আন্তঃজেলা শিক্ষা বোর্ড ও ঢাকা শিক্ষা বোর্ডের কলেজ পরিদর্শক ড. মো. আশফাকুস সালেহীন অভিযোগ স্বীকার করে বলেন, যেসব অভিযোগ আসছে আমরা ত্বরিৎ সমাধানের চেষ্টা করছি। এ কারণে আবেদনের সংখ্যা দুইদিনে দুই লাখ ছাড়িয়েছে।

তিনি বলেন, ভর্তিইচ্ছুদের আবেদনের মধ্যে নানা ভুল-ভ্রান্তি ধরা পড়ছে। তবে পরবর্তীতে তা পাঁচবার সংশোধন করার সুযোগ দেয়া হবে।

গত মঙ্গলবার দুপুর ২টা থেকে একাদশ শ্রেণির ভর্তি আবেদন কার্যক্রম শুরু হয়। আবেদনের শেষ দিন নির্ধারণ করা হয়েছে ২৬ মে। গত রোববার ২০১৭-১৮ সালের ভর্তি নীতিমালা জারির মাধ্যমে ভর্তির সময় নির্ধারণ করা হয়।

নীতিমালায় বলা হয়, সর্বনিম্ন ৫টি এবং সর্বোচ্চ ১০টি কলেজ বা সমমানের প্রতিষ্ঠানের জন্য পছন্দক্রম দিয়ে আবেদন করতে পারবে শিক্ষার্থীরা। প্রতি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের জন্য অনলাইনের ক্ষেত্রে ১৫০ টাকা এবং টেলিটকে ১২০ টাকা ফি দিয়ে আবেদন করতে হবে।

অনলাইনের জন্য www.xiclassadmission.gov.bd ঠিকানায় এবং টেলিটক থেকে এসএমএসের মাধ্যমে আবেদন করা যাবে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জারি করা ভর্তির এই নীতিমালায় আরও বলা হয়, একজন শিক্ষার্থী যতগুলো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে আবেদন করবে, সেখান থেকে শিক্ষার্থীর মেধা ও পছন্দক্রমের ভিত্তিতে একটি কলেজ নির্ধারণ করে দেয়া হবে।

কলেজে ভর্তির জন্য প্রথম পর্যায়ে নির্বাচিত শিক্ষার্থীদের ফল প্রকাশ করা হবে ৫ জুন। এরপর আরও দুই দফায় আবেদন গ্রহণ করে নির্ধারিত সময়ে ভর্তির কাজ শেষ করা হবে। আর ১ জুলাই থেকে শুরু হবে ক্লাস।

কলেজ পরিদর্শক বলেন, পুনঃনিরীক্ষার ফলে যদি কারও ফল পরিবর্তন হয় আবেদনকারী তখন ইচ্ছা করলে পুনরায় কলেজ নির্বাচন পরিবর্তন করতে পারবে।

তিনি বলেন, একটি টেলিটক নম্বর দিয়ে একাধিক আবেদন করা যাবে, তবে যোগাযোগের নম্বর একাধিক আবেদনে ব্যবহার করা যাবে না। এছাড়া কলেজ নির্বাচন হলেও টাকা জমা না হলে সে আবেদন বাতিল বলে গণ্য হবে। তবে পুনরায় তাকে আবেদনের সুযোগ দেয়া হবে বলে তিনি জানান।

উল্লেখ্য, গত ৪ মে এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশিত হয়। এতে ৮টি সাধারণ বোর্ড, একটি মাদ্রাসা ও একটি কারিগরি বোর্ডসহ মোট ১০ বোর্ডের অধীনে ১৪ লাখ ৩১ হাজার ৭২২ জন পাস করেছে। আর জিপিএ ৫ পেয়েছে ১ লাখ ৪ হাজার ৭৬১ জন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

৪ মে স্নাতক ১ম বর্ষ ভর্তির রিলিজ স্লিপের আবেদন শুরু

নিজেস্ব প্রতিবেদক : ২ মে : জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষে ১ম বর্ষ স্নাতক শ্রেণির (পাস) ভর্তি কার্যক্রমের ২য় ও সর্বশেষ রিলিজ স্লিপের অনলাইন আবেদন শুরু হবে ৪ই মে থেকে।

ওই দিন বিকাল ৪টা থেকে শুরু হয়ে ১১ মে রাত ১২টা পর্যন্ত অনলাইনে চলবে এ আবেদন প্রক্রিয়া। মঙ্গলবার (২রা মে) এ সংক্রান্ত এক বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

এদিকে ২০১৬-২০১৭ শিক্ষাবর্ষে ১ম বর্ষ স্নাতক (পাস) ভর্তি কার্যক্রমে যে সব প্রার্থী কোন মেধা তালিকায় স্থান পায়নি অথবা স্থান পেয়েও ভর্তি হয়নি তাদের মেধা তালিকায় স্থান পেতে ২য় রিলিজ স্লিপে আবেদন করতে হবে। এছাড়া যারা ভর্তি বাতিল করেছে তাদেরও ২য় রিলিজ স্লিপে আবেদন করতে হবে।

নতুন করে কোন শিক্ষার্থী প্রাথমিক আবেদন করতে পারবে না। এই সংক্রান্ত বিস্তারিত তথ্য জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট (www.admissions.nu.edu.bd অথবা nu.edu.bd/admissions)  থেকে পাওয়া যাবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে এলএলবি অনার্স কোর্স চালুর সিদ্ধান্ত

গাজিপুর প্রতিনিধি,২২ এপ্রিল : কলেজগুলোতে ৪ বছর মেয়াদি এলএলবি (অনার্স) কোর্স চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়।
বৃহস্পতিবার গাজীপুরস্থ মূল ক্যাম্পাসের একাডেমিক ভবনের উপাচার্য প্রফেসর ড. হারুন-অর-রশিদ এর সভাপতিত্বে বিশ্ববিদ্যালয়ের একাডেমিক কাউন্সিলের ৮৫তম সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।

২০১৭-১৮ শিক্ষাবর্ষ হতে অধিভুক্ত কলেজে এবং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে অন ক্যাম্পাস এমবিএ ইনট্যুরিজম এ্যান্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট কোর্স চালুর বিষয়েও সিদ্ধান্ত নেয়া হয়।
সভায় একাডেমিক কাউন্সিলের এ সভায় অধ্যাপক মাহফুজা খানম, প্রফেসর ড. গাজী সালেহ উদ্দিন, সমাজতত্ত বিভাগ, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়, অধ্যাপক ড. এস এম মাহফুজুর রহমান, সভায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. আসলাম ভূঁইয়া, প্রফেসর ড. হাফিজ মুহম্মদ হাসান বাবু, কোষাধ্যক্ষ প্রফেসর মো. নোমান উর রশীদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

রবিবার শুরু হচ্ছে কামিল পরীক্ষা

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি : ২২ এপ্রিল : কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) অধীনে ২০১৫ সালের কামিল প্রথম পর্বের পরীক্ষা আগামীকাল রবিবার এবং দ্বিতীয় পর্বের পরীক্ষা সোমবার শুরু হবে। ইবি’র ভারপ্রাপ্ত পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক এ কে আজাদ লাভলু জানান, সময়সূচি অনুযায়ী সকাল ১০টায় পরীক্ষা শুরু হয়ে শেষ হবে বেলা ২টায়। সারাদেশের ১৩০টি কেন্দ্রে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক জানান, উভয় পর্বে প্রায় ১৮ হাজার পরীক্ষার্থী এতে অংশগ্রহণ করবেন। নিয়ন্ত্রক অফিস সূত্রে বলা হয়েছে, প্রথম পর্ব ও দ্বিতীয় পর্বের পরীক্ষা যথাক্রমে ৫ এবং ৭ মে শেষ হবে। বিস্তারিত তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে www.iu.ac.bd পাওয়া যাবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে অনার্স চতুর্থবর্ষের পরীক্ষা শুরু ৩ জানুয়ারি

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৫ সালের অনার্স চতুর্থ বর্ষের পরীক্ষা আগামী মঙ্গলবার (৩ জানুয়ারি) সকাল ৯টায় শুরু হবে।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে রোববার (১ জানুয়ারি) এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এতে বলা হয়, সারাদেশের ৪১৬টি কলেজের ১৬৪টি কেন্দ্রে সর্বমোট এক লাখ ৩৩ হাজার ৭৯৬ জন পরীক্ষার্থী ৩০টি বিষয়ে পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করবে।

পরীক্ষা নিতে যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে জানিয়ে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ প্রশাসন, সংশ্লিষ্ট কলেজ, শিক্ষক, শিক্ষার্থী এবং অভিভাবকদের সহযোগিতা কামনা করছে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

পাবিপ্রবির ভর্তি পরীক্ষা শুক্রবার

পাবনা প্রতিনিধি :

পাবনা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (পাবিপ্রবি) ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষা শুক্রবার অনুষ্ঠিত হবে।

 

বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, পাবনা জেলা স্কুল, সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়, ইমাম গাজ্জালী স্কুল, টেক্সটাইল ইঞ্জিনিয়ারিং কলেজ, শহীদ এম মনসুর আলী কলেজ, টিচার্স ট্রেনিং কলেজ (টিটিসি), সরকারি মহিলা কলেজ, শহীদ ফজলুল হক পৌর উচ্চ বিদ্যালয়, গোপাল চন্দ্র ইনস্টিটিউট (জি সি ইনস্টিটিউট), সেন্ট্রাল গার্লস হাই স্কুল ও পাবনা কলেজসহ মোট ১২টি কেন্দ্রের ৬২৬টি কক্ষে তিন সেশনে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

 

এ বছর ২০টি বিভাগে ৮৮০ আসনের বিপরীতে প্রার্থী ৩৭ হাজার ৭৭৮ জন। গড়ে প্রতি আসনের বিপরীতে আবেদনকারী ৪৩ জন প্রার্থী।

 

ইঞ্জিনিয়ারিং অ্যান্ড টেকনোলজি অনুষদের অধীনে এ ১ ইউনিটে কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং (আসন-৪০), ইলেকট্রিক্যাল অ্যান্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং (৪০), ইলেক্ট্রনিক অ্যান্ড টেলিকমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং (৪০), ইনফরমেশন অ্যান্ড কমিউনিকেশন ইঞ্জিনিয়ারিং (৪০), সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং (৪০), নগর ও অঞ্চল পরিকল্পনা (৪০) এবং এ ২ ইউনিটে স্থাপত্য বিভাগে আসন (৩০)।

 

এ অনুষদে ২৭০ আসনের বিপরীতে আবেদনকারী ১৪ হাজার ৮৫৩ জন। এ ইউনিটের পরীক্ষার সময় (এ-১) বিকেল সাড়ে ৩টা থেকে সাড়ে ৪টা পর্যন্ত ও (এ-২) সাড়ে ৩টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত।

 

বিজ্ঞান এবং জীব ও ভূ-বিজ্ঞান অনুষদের অধীনে বি ইউনিটে গণিত (৫০), পদার্থ (৪০), ফার্মেসি (৪০), রসায়ন (৪০), পরিসংখ্যান (৪০), ভূগোল ও পরিবেশ বিভাগের আসন (৫০)। এ অনুষদে ২৬০ আসনের বিপরীতে আবেদন করেছে ১৪ হাজার ৬৩৬ জন। বি ইউনিটের পরীক্ষার সময় বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত।

 

বিজনেস স্টাডিজ এবং মানবিক ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদের অধীনে সি ইউনিটে ব্যবসায় প্রশাসন (৫০), অর্থনীতি (৫০), বাংলা (৫০), সমাজকর্ম (৫০) ইংরেজি (৫০), লোক প্রশাসন (৫০) এবং ইতিহাস ও বাংলাদেশ স্টাডিজ বিভাগের আসন (৫০)।

 

এ অনুষদে ৩৫০ আসনের বিপরীতে আবেদন করেছে ৮ হাজার ২৮৯ জন প্রার্থী। সি ইউনিটের পরীক্ষার সময় সকাল সাড়ে ৯টা থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত।

 

ভর্তি পরীক্ষায় ইলেক্ট্রনিক ডিভাইস আনা নিষিদ্ধ করেছেন বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত সব তথ্য ও আসন বিন্যাস www.pust.ac.bd তে পাওয়া যাবে।

 

 

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

শনিবার থেকে ইবিতে শুরু হচ্ছে ভর্তির সাক্ষাৎকার

কুষ্টিয়ার ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) ২০১৬-১৭ শিক্ষাবর্ষের স্নাতক (সম্মান) প্রথমবর্ষের ভর্তি সাক্ষাৎকার শনিবার থেকে শুরু হচ্ছে। ৮ ইউনিটের সাক্ষাৎকার চলবে ২১ ডিসেম্বর পর্যন্ত।

বিশ্ববিদ্যালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ অফিসের এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন জানিয়েছে, এ বছর পাঁচটি অনুষদের অন্তর্ভুক্ত ৮ ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষা হয়েছে।  ধর্মতত্ত্ব অনুষদের অন্তর্ভুক্ত ‘এ’ ইউনিটের ভর্তি সাক্ষাৎকার ১৮-২০ ডিসেম্বর। মানবিক ও সমাজবিজ্ঞান অনুষদের অন্তর্ভুক্ত ‘বি’ ইউনিটের সাক্ষাৎকার ১৭-১৯ ডিসেম্বর। একই অনুষদভুক্ত ‘সি’ ইউনিটের সাক্ষাৎকার ১৭ ও ১৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। ফলিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদভুক্ত ‘ডি’ ইউনিটের ভর্তি সাক্ষাৎকার ১৭ ডিসেম্বর। একই অনুষদভুক্ত ‘ই’ ইউনিটের ১৮ ও ১৯ এবং ‘এফ’ ইউনিটের সাক্ষাৎকার ১৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদভুক্ত ‘জি’ ইউনিটের সাক্ষাৎকার ১৯-২১ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। আইন ও শরিয়াহ অনুষদভুক্ত ‘এইচ’ ইউনিটের ভর্তি সাক্ষাৎকার ১৯ ও ২০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। সব ইউনিটের ভর্তি সাক্ষাৎকার সকাল ৯টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত নিজ নিজ ইউনিট সমন্বয়কারীর অফিসে অনুষ্ঠিত হবে। সাক্ষাৎকারের সময় পরিদর্শকের স্বাক্ষর সম্বলিত ভর্তি পরীক্ষার প্রবেশপত্র, এসএসসি, এইচএসসি অথবা সমমান পরীক্ষার প্রবেশপত্র, রেজিস্ট্রেশন কার্ড, মূল সনদপত্র/প্রশংসাপত্র, মূল নম্বরপত্র এবং ৮ (আট) কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি সঙ্গে আনতে হবে। এছাড়া ভর্তি সংক্রন্ত সব তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব ওয়েবসাইট (www.iu.ac.bd) থেকে পাওয়া যাবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

শেকৃবির ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশ

শিক্ষা ডেস্ক : রাজধানীর শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শেকৃবি) স্নাতক প্রথম বর্ষের ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে।

গতকাল রোববার রাত সাড়ে ১১টায় উপাচার্য অধ্যাপক ড. কামাল উদ্দিন আহম্মদ আনুষ্ঠানিকভাবে ফলাফল প্রকাশ করেন। বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের নোটিশ বোর্ড ও বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইটে ফলাফল পাওয়া যাবে।

এবারের ভর্তি পরীক্ষায় সর্বোচ্চ ৮৪ নম্বর পেয়েছেন এক শিক্ষার্থী। প্রাপ্ত নম্বর এবং এসএসসি ও এইচএসসির জিপিএর ভিত্তিতে মেধাতালিকা তৈরি করা হয়েছে। মূল মেধাতালিকা থেকে ভর্তি ২৬ ও ২৭ ডিসেম্বর।

অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে ভর্তি ২৯ ডিসেম্বর। অপেক্ষমাণ তালিকা থেকে ভর্তিচ্ছু প্রার্থীদের ২৮ ডিসেম্বর দুপুর ২টার মধ্যে সশরীরে উপস্থিত হয়ে রেজিস্ট্রার কার্যালয়ে প্রবেশপত্র জমা দিতে হবে এবং একই দিনে মেধাক্রম অনুসারে ভর্তিযোগ্য প্রার্থীদের তালিকা প্রকাশ করা হবে। তাঁদের ২৯ ডিসেম্বর সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত সশরীরে উপস্থিত থেকে ভর্তি হতে হবে। ভর্তির জন্য ন্যূনতম ১৯ হাজার টাকা প্রয়োজন হবে। ক্লাস শুরু হবে ৩ জানুয়ারি।

গত ৯ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত ভর্তি পরীক্ষায় চারটি অনুষদে ৫৪০টি আসনের বিপরীতে ৩০ হাজার ২৬৫ জন শিক্ষার্থী আবেদন করেন।

ভর্তি বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট (www.sau.edu.bd) থেকে জানা যাবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

মাস্টার্স শেষপর্ব পরীক্ষার আবেদন ফরম পূরণ শুরু

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৩-২০১৪ শিক্ষাবর্ষের ২০১৪ সালের মাস্টার্স এমএ/এমএসএস/এমবিএস/ এমএসসি ও এম মিউজ শেষ পর্ব (আইসিটি সহ) পরীক্ষার আবেদন ফরম পূরণ অনলাইনে শুরু হয়েছে এবং চলবে আগামী ৯ জানুয়ারি পর্যন্ত।
রোববার (১১ ডিসেম্বর) বিশ্ববিদ্যালয়ের জনসংযোগ, তথ্য ও পরামর্শ দফতরের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক মো. ফয়জুল করিম সাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানা যায়। বিস্তারিত জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েবসাইট (www.nubd.info/mf)  পাওয়া যাবে বলে বিজ্ঞপ্তিতে উল্লেখ করা হয়।
Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

Responsive WordPress Theme Freetheme wordpress magazine responsive freetheme wordpress news responsive freeWORDPRESS PLUGIN PREMIUM FREEDownload theme free