টপ খবর

জাতীয়করন প্রাথমিক শিক্ষকদের টাইমস্কেল নিয়ে জটিলতা

নিজস্ব প্রতিবেদক,১৪ এপ্রিল ২০১৯ঃ২০১৩ ও ২০১৪ সালে যে সকল বেসরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়কে জাতীয়করন করা হয়েছিল তাদের নিজ দপ্তর  টাইমস্কেল প্রদান করার কারন জানতে চেয়েছে অর্থমস্ত্রনালয়।

চিঠিতে বলা হয়েছে, ‘উপর্যুক্ত বিষয় ও সুত্রোক্ত পত্রের পরিপ্রেক্ষিতে কোন কর্মচারীর আর্থিক সুবিধা তথা বেতন, সিলেকশন গ্রেড, টাইমস্কেল ইত্যাদি প্রাপ্যতার ক্ষেত্রে সার্ভিসেস এক্ট ১৯৭৫ এর অধীন জারীকৃত চাকরি (বেতন ও ভাতাদি) আদেশ প্রযোজ্য। অন্য কোন বিধিমালা প্রযোজ্য নয়।

Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

নববর্ষের আগে বৈশাখী ভাতা তুলতে পারল না শিক্ষক-কর্মচারীরা

নিজস্ব প্রতিবেদক,১৩ এপ্রিল: নববর্ষের আগে বৈশাখী ভাতা তুলতে পারেননি শিক্ষক-কর্মচারীরা। ব্যাংকে দেরিতে চেক জমা হওয়ায় এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। ফলে কারো পক্ষেই বৈশাখী ভাতা তোলা সম্ভব হয়নি বলে শিক্ষক-কর্মচারীদের অভিযোগ। এতে অনেকেই ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন। তবে কয়েকজন শিক্ষক ভাতার টাকা তুলতে পেরেছেন বলেও জানা গেছে।

শিক্ষক নেতারা জানান, তারা ব্যাংক থেকে বৈশাখী ভাতার টাকা তুলতে পারেননি। দেশের বেশিরভাগ স্থানে এ ঘটনা ঘটেছে। ফলে অগ্রণী, রূপালী, জনতা এবং সোনালী ব্যাংকের বিভিন্ন জেলা শাখায় সাধারণ, মাদরাসা ও কারিগরি শিক্ষকরা সারাদিন ধরনা দিয়েও বৃহস্পতিবার (১২ এপ্রিল) বিকেলে টাকা তুলতে না পেরে ফিরে গেছেন। Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ উপজেলাভিত্তিক

নিজস্ব প্রতিবেদক: সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে প্রধান শিক্ষক ও সহকারী শিক্ষক নিয়োগ প্রক্রিয়ায় পাঁচটি পরিবর্তন আনা হয়েছে। ইতোমধ্যেই গেজেট প্রকাশ করা হয়েছে।নতুন নিয়োগ বিধিমালায় শিক্ষক নিয়োগ আগের মতোই উপজেলা বা থানাভিত্তিক করা হয়েছে। তবে কেন্দ্রীয়ভাবে গঠিত সহকারী শিক্ষক নির্বাচন কমিটির সুপারিশ ছাড়া কোনো ব্যক্তিকে সহকারী শিক্ষক পদে সরাসরি নিয়োগ দেওয়া যাবে না।

 

এ ছাড়া বাংলাদেশের স্থায়ী বাসিন্দা না হলে বা বাংলাদেশের নাগরিক ভিন্ন কাউকে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক পদে নিয়োগ দেওয়া যাবে না।

 

 

 

সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে নিয়োগের ক্ষেত্রে ২০১৩ সালের নিয়োগ বিধিমালা অনুসরণ করে এতদিন শিক্ষক নিয়োগ ও পদোন্নতি কার্যক্রম পরিচালিত হয়েছে। এখন থেকে নতুন নিয়োগ বিধিমালা কার্যকর হবে।

 

নতুন বিধিমালায় সহকারী শিক্ষক পদে পুরুষ ও নারী উভয়ের ক্ষেত্রেই শিক্ষাগত যোগ্যতা স্নাতক করা হয়েছে। এতে বলা হয়েছে, কোনো স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় থেকে দ্বিতীয় শ্রেণি বা সমমানের সিজিপিএসহ স্নাতক বা অনার্স অথবা সমমানের ডিগ্রি হতে হবে। বয়সসীমা নির্ধারণ করা হয়েছে ২১ থেকে ৩০ বছর। তবে নারী প্রার্থীদের জন্য ৬০ শতাংশ কোটা বহাল থাকবে। ২০ শতাংশ পোষ্য কোটা ও বাকি ২০ শতাংশ পুরুষ প্রার্থীদের জন্য বরাদ্দ রাখা হয়েছে। এ ক্ষেত্রে বিজ্ঞান বিষয়ে পাস করা প্রার্থীদের অগ্রাধিকার দেওয়া হবে। যদি ২০ শতাংশ কোটা পূরণ না হয়, তবে মেধার ভিত্তিতে নিয়োগ দেওয়া হবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

নুসরাতকে পুড়িয়ে হত্যা অধ্যক্ষসহ দুই শিক্ষকের এমপিও স্থগিত

ডেস্ক,১৩এপ্রিলঃ   গায়ে কেরোসিন ঢেলে পুড়িয়ে হত্যা করা নুসরাত জাহান রাফির সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাযিল মাদরাসার অধ্যক্ষ এস এম সিরাজ-উদ-দৌলার এমপিও স্থগিত করা হয়েছে। ওই মাদরাসার অন্য এক শিক্ষকেরও এমপিও স্থগিত করতে বৃহস্পতিবার মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরে চিঠি পাঠিয়েছে মাদরাসা শিক্ষা অধিদপ্তর।

 

চিঠিতে অধ্যক্ষ এ এস এম সিরাজ উদদৌলা (ইনডেক্স-৩০৪১১১) এবং ইংরেজির প্রভাষক আফসার উদ্দিনের (ইনডেক্স-২০৩০৫০৮) এমপিও স্থগিত করতে বলা হয়েছে। এতে বলা হয়, ‘আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাত জাহান রাফিকে শ্লীলতাহানী মামলা নং-২৪, তারিখ ২৭/০৩/২০১৯ এবং হত্যা মামলা নং-১০, তারিখ ০৮/০৪/২০১৯ সোনাগাজী থানার প্রেক্ষিতে  অধ্যক্ষ এবং ইংরেজি বিষয়ের প্রভাষক গ্রেপ্তার হওয়ায় তাদের এমপিও স্থগিত হওয়া প্রয়োজন।’

 

নুসরাতের পরিবারের করা শ্লীলতাহানির মামলায় গ্রেফতার হয়ে এখন বন্দি রয়েছেন অধ্যক্ষ সিরাজ।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ফার্টিলিটি চিকিৎসক যখন নিজেই ৪৯ নারীকে শুক্রানু দিলেন!

ডেস্ক,১৩ এপ্রিল:
হেগ: নেদারল্যান্ডস এর ঘটনা। সেখানে একজন ফার্টিলিটি চিকিৎসকের কাজ ছিল সন্তান জন্মদানে সমস্যা রয়েছে এমন ব্যক্তিদের ডাক্তারি সহায়তা দেয়া এবং তাদের সন্তান নিতে সহায়তা করা।

কিন্তু তিনি এসব ব্যক্তিদের অনুমতি না নিয়ে নিজেই ৪৯ টি সন্তানের জন্ম দিয়েছেন। খবর বিবিসির

সেই চিকিৎসক বছর দুয়েক আগে মারাও গেছেন। এখন ডিএনএ পরীক্ষায় ধীরে ধীরে এসব তথ্য বের হচ্ছে।

ঠিক কি ঘটেছিলো?
ডা. ইয়ান কারবাতের ক্লিনিক ছিল নেদারল্যান্ডসের রটারড্যাম এলাকায়।

এসব ক্লিনিকে আসতেন সন্তান নিতে সমস্যা রয়েছে এমন নারী ও দম্পতিরা।

ফার্টিলিটি ক্লিনিকের একটি কাজ হল কোন পুরুষের কাছ থেকে তার দান করা শুক্রাণু সংগ্রহ করা।

অনেক ক্ষেত্রে শুক্রাণু দানকারীর পরিচয় গোপন রাখা হয়।

আবার অনেক সময় চিকিৎসা নিতে আসা ব্যক্তিরা শুক্রাণু দানকারীকে নিজেরা পছন্দ করে নিয়ে আসেন।

এরপর সেই শুক্রাণু দিয়ে ল্যাবে ভ্রূণ তৈরির পর সহায়তা নিতে আসা ব্যক্তিদের সন্তান জন্মদানে সহায়তা করf হয়।

ডা. ইয়ান কারবাতে এসব ক্ষেত্রে নিজেই নিজের শুক্রাণু ব্যবহার করতেন বলে এখন জানা যাচ্ছে।

তাও আবার চিকিৎসা সহায়তা নিতে আসা লোকজনের কোন অনুমতি ছাড়াই। Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

এবার চিঠি লিখে শিক্ষকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ ছাত্রীদের

নাটোর,১৩ এপ্রিল : নাটোরে নবাব সিরাজ-উদ-দৌলা সরকারী কলেজের উদ্ভিদবিদ্যা বিভাগের এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। বিভাগের তৃতীয় বর্ষের এক ছাত্রী ওই বিভাগের এক শিক্ষকের দ্বারা যৌন হয়রানির শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন।
এ ঘটনায় যৌন হয়রানি থেকে মুক্তি ও নিজেদের নিরাপত্তা চেয়ে নাটোর প্রেসক্লাব ও বেশ কয়েকটি মানবাধিকার সংগঠন বরাবর একটি চিঠি পাঠিয়েছেন ছাত্রীরা।

Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ভর্তি মৌসুমে শিক্ষক সংকটের আশঙ্কা

ডেস্ক,১৩ এপ্রিল: চাঁদপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে রাজস্ব খাতে ইনস্ট্রাক্টর, জুনিয়র ইনস্ট্রাক্টর, ওয়ার্কশপ সুপার পদে শিক্ষক আছেন মাত্র ৫ জন। এসব পদে স্টেপ প্রকল্পের শিক্ষক আছেন ২০ জন। প্রতিষ্ঠানটিতে বর্তমানে শিক্ষার্থীর সংখ্যা প্রায় ১৫২৪ জন।

মুন্সীগঞ্জ পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে এসব পদে রাজস্ব খাতের শিক্ষক আছেন মাত্র ৪ জন, প্রকল্পের শিক্ষক আছেন ১৮ জন। একইভাবে শরীয়তপুর, ফেনী, ভোলা, বরগুনা, কক্সবাজার, লক্ষ্মীপুর, ঠাকুরগাঁও, গোপালগঞ্জ, কুড়িগ্রামসহ দেশের সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটগুলোও সরকারি শিক্ষকের চেয়ে প্রকল্পভুক্ত শিক্ষদের ওপর নির্ভরশীল।

 

অথচ এ প্রকল্প শিক্ষকদের চাকরির মেয়াদ শেষ হয়ে যাচ্ছে আগামী ৩০ জুন। ফলে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর আসছে ভর্তি মৌসুমে এসব প্রতিষ্ঠানে এক-তৃতীয়াংশ শিক্ষক যদি না থাকেন, তা হলে একাডেমিক কার্যক্রম চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হবে বলে মনে করছেন সংশ্লিষ্টরা। জানা গেছে, কারিগরি শিক্ষার মানোন্নয়নে ২০১০ সালে দক্ষতা ও প্রশিক্ষণ উন্নয়ন শীর্ষক (স্কিলস অ্যান্ড ট্রেনিং এনহ্যান্সমেন্ট প্রজেক্ট বা স্টেপ) একটি প্রকল্প চালু করে সরকার।

নিয়োগের দীর্ঘসূত্রতা এড়াতে এ প্রকল্পের অধীনে ২০১২ এবং ২০১৪ সালে দুই ধাপে মোট ১০২৫ জন শিক্ষককে চুক্তির ভিত্তিতে নিয়োগ করে সরকার। পরে অনিশ্চয়তার কারণে তাদের অনেকেই চাকরি ছেড়ে চলে গেলেও উন্নয়ন খাতে বর্তমানে কর্মরত আছেন ৮৭৬ জন। এর মধ্যে দুদফা প্রকল্পের মেয়াদ বাড়িয়ে আগামী জুনে শেষ হচ্ছে প্রকল্পটি। ফলে চাকরি হারানোর শঙ্কায় রয়েছেন প্রকল্পভুক্ত এসব শিক্ষকরা।

এই শিক্ষকরা বলছেন, ৩০ জুনের পর তার চাকরির ভাগ্য অনিশ্চিত হয়ে পড়বে। তাদের প্রত্যেকেরই পরিবার আছে। ফলে বিদ্যমান চাকরি সংকটের বাজারে চাকরিচ্যুত হওয়ার আশঙ্কায় নির্ঘুম রাত কাটছে তাদের। অথচ কারিগরি শিক্ষার দুরাবস্থার সময় তারা হাল ধরেছিলেন। ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়ার্স বাংলাদেশের (আইডিইবি) কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সভাপতি একেএমএ হামিদ বলেন, সরকারের উন্নয়ন পরিকল্পনায় বারবার বলা হয়েছে দক্ষ কর্মশক্তি ও কর্মীর অভাব আছে। এমন পরিস্থিতিতে দক্ষ কর্মীদের কর্মক্ষেত্র থেকে বের করে দেওয়া হলে উন্নয়ন আরও ব্যাহত হবে।

আইডিইবির কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সাধারণ সম্পাদক শামসুর রহমান বলেন, রাজস্ব খাতে বর্তমানে ৬৫০ জনের মতো কারিগরি শিক্ষক রয়েছেন। সে কারণেই এই ৮৭৬ শিক্ষক না থাকলে আবারও ধসে পড়বে কারিগরি শিক্ষা ব্যবস্থা। বঙ্গবন্ধু ডিপ্লোমা প্রকৌশলী পরিষদের সভাপতি খবির হোসেন বলেন, জুন মাস থেকে যদি স্টেপের শিক্ষকরা না থাকেন তা হলে ৪৯টি কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিটিতে ১৭-১৮ জন করে শিক্ষক সংকট হবে। এতে কারিগরি শিক্ষা ব্যবস্থা ভেঙে পড়বে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যদি ১০-১২ লাখ রোহিঙ্গাকে খাওয়াতে পারেন, তা হলে এই ৮৭৬ শিক্ষকের জন্যও ব্যবস্থা করবেন তিনি।

বাংলাদেশ পলিটেকনিক টিচার্স ফেডারেশনের (বিপিটিএফ) কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সভাপতি মোহাম্মদ সালাউদ্দিন বলেন, ৮৭৬ শিক্ষক ও তাদের পরিবারের রুটি-রুজির বিষয় নিয়ে সরকারের ভাবা উচিত। এ বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, এই শিক্ষকদের সাধারণ কোনো নিয়মের মধ্য দিয়ে আত্তীকরণ কিংবা অন্য কোনো প্রকল্পে নেওয়ার সুযোগ নেই। কারণ তাতে সবাই যে একটা সমান অধিকার পেয়ে অ্যাপ্লাই করবে সে সুযোগ নষ্ট হবে। অধিকার ক্ষুণ্ন হলে আবার আদালতের হস্তক্ষেপে নিয়োগ বন্ধ হয়ে যাবে। সে কারণে একেবারে ভিন্নভাবে চেষ্টা করছি, কী করে এই অভিজ্ঞ যোগ্য শিক্ষকদের আমরা ধরে রাখতে পারি। এ ধরনের একটি চেষ্টায় সময় লাগবে। আমি মনে করি এই শিক্ষকদের অভিজ্ঞতা হারিয়ে ফেলা ঠিক হবে না। তবে এ মুহূর্র্তে নিশ্চয়তা দিতে পারছি না, কিন্তু চেষ্টা করছি।

সুত্র : আমাদের সময়

Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

আজ চৈত্রসংক্রান্তি, কাল পহেলা বৈশাখ

শিশির দাস,১৩ এপ্রিল: জীর্ণ পুরাতন যাক ভেসে যাক, মুছে যাক গ্লানি’ এই প্রণতির ভেতর রাত পোহালেই নতুন দিন। পূর্বদিগন্ত উদ্ভাসিত করে ভোরের নরম আলো রাঙিয়ে দেবে চরাচর, স্বপ্ন, প্রত্যাশা। নব সম্ভাবনায় সূচিত হবে নববর্ষ।

চৈত্রসংক্রান্তি আজ। বাংলা সনের সবশেষ মাস চৈত্রের শেষ দিন। এক ক্রান্তি হতে উঠে আরেক ক্রান্তিতে সংক্রান্তি। বাংলা সনের সমাপনী মাস চৈত্রের এ শেষ দিনটি সনাতন বাঙালির লৌকিক আচারের ‘চৈত্র সংক্রান্তি’। হিন্দু সম্প্রদায় বাংলা মাসের শেষ দিনে শাস্ত্র ও লোকাচার অনুসারে স্নান, দান, ব্রত, উপবাস ক্রিয়াকর্মে কাটান। Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

SEO শিখে ঘরে বসে লাখ টাকা আয় করুন। পর্ব-২

শিশির দাস,এমএসসি(পিজিডিসিটি) (এডমিন)

আজ আপনাদের মাঝে SEO টিউটোরিয়াল(পর্ব-২) নিয়ে হাজির হয়েছি।

SEO কত প্রকার ও কি কি:

SEO সাধারনত দুই প্রকার। যথা:

  1. On page SEO,
  2. Off page SEO

Onpage SEO : এক কথায় On page SEO হলো কোন ওয়েব পেজ এর ভিতরে প্রবেশ করে কাজ করা। On page SEO এর মুল কাজ হচ্ছে প্রধানত Keyword Research ও Meat Tag। এ বিষয়ে পরবর্তীতে আমি বিস্তারিত আলোচনা করবো। আর Off page SEO শুরু করার আগে On page SEO ভালোভাবে সম্পন্ন করতে হবে। তা না হলে পুরো পরিশ্রমই মাটি হয়ে যাবে।

Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

আপনি কি SEO শিখতে চান ? পর্ব-১

শিশির দাস(এডমিন)

আজ আপনাদের মাঝে SEO টিউটোরিয়াল নিয়ে হাজির হয়েছি। SEO একটি দীর্ঘ মেয়াদী পরিকল্পনা।শুধু নতুনদের জন্য যারা SEO শিখতে খুবই আগ্রহী। আজ আমি আমার অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে খুব সহজে আপনাদের SEO শেখাবো। সেই সাথে আমি আপনাদেরকে এমন ভাবে শেখানোর চেষ্টা করবো যাতে আপনারা খুব সহজে বুঝতে পারেন এবং নিশ্চিত ইনকাম করতে পারেন। আমি আশা করছি শেষ পর্যন্ত আপনাদেরকে আমার সাথে পাবো। যাই হোক কথা অনেক হলো, এখন কাজের কথায় আসি।

 

বর্তমানে SEO এর চাহিদাঃ

এখন দেশে এবং বিদেশে SEO এর চাহিদা প্রচুর দিন দিন প্রচুর বাড়ছে। কারণ কোন ওয়েব সাইটের মুল শক্তি হচ্ছে SEO। বর্তমানে বিশ্বের প্রায় সব ব্যবসাই প্রযুক্তি নির্ভর হচ্ছে। তাই অনেক E-Commerce ওয়েব সাইট তৈরি হচ্ছে। তাই ব্যাবসায়ীরা তাদের ব্যাবসার প্রসার ঘটানোর জন্যে SEO এর সাহায্য নিচ্ছে। আর ফ্রীলাঞ্ছার মার্কেটপ্লেস যেমন Elance,Up work(O-Desk) এ এর চাহিদা প্রচুর। বর্তমানে একজন দক্ষ SEO worker মাসে প্রায় $ ১০০-১০০০ us আয় করছে, যাহ বাংলাদেশি টাকায় প্রায় ৭৮০০-৭৮০০ টাকা। কি অবাক হয়ে গেলেন? অবাক হওয়ার কিছুই নাই। যদি বিশ্বাস না হয় তাহলে যেকোনো ফ্রীলান্চার মার্কেটপ্লেসে একবার দেখে আসুন।

Read More »

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

“প্রাইমারি সহকারী নিয়োগ পরীক্ষার Shortcut সাজেশন!!!

বাংলা সাহিত্যঃ

✬ বাংলা উপন্যাস – বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায়
✬ বাংলা সনেট – মাইকেল মধূ সূদন দত্ত
✬ আধুনিক বাংলা নাটক – মাইকেল মধূ সূদন দত্ত
✬ বাংলা গদ্য সাহিত্য – ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর
✬ বাংলা ছোট গল্প – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
✬ গদ্য ছন্দ – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর
✬ মুক্ত ছন্দ – কাজী নজরুল ইসলাম
✬ আধুনিক বাংলা কবিতা – জীবনান্দ দাশ
✬ চলিত রীতিতে গদ্যের জনক – প্রমথ চৌধুরী

ইংরেজি সাহিত্য

✬ ইংরেজি উপন্যাস – হেনরি ফিল্ডিং
✬ ইংরেজি প্রবন্ধ ও গদ্য – ফ্রান্সিস বেকন
✬ ইংরেজি রূপকথা – হ্যান্স ক্রিস্টিয়ান অ্যান্ডারসন
✬ ইংরেজি ট্রাজেডি – ক্রিস্টোফার মারলো
✬ ইংরেজি সনেট – স্যার থমাস ওয়াট
✬ আধুনিক ইংরেজি কবিতা – জিওফ্রে চসার
✬ আধুনিক ইংরেজি সাহিত্য – জর্জ বার্নাডশ

বিশ্ব সাহিত্য সংস্কৃত

✬ সনেট – পেত্রাক
✬ সায়েন্স ফিকশন – মেরি শ্যালি
✬ যাত্রা – ক্লাওডিও মন্টে ভারডি
✬ রুশ সাহিত্য – ম্যক্সিম গোরকি
✬ চলচিত্র – এডওয়ার্ড মিউব্রিজ ।
✬ বাংলাদেশ চলচিত্র – আব্দুল জব্বার খান
✬ আধুনিক নৃত্য – ইসাডেরা
✬ পশ্চিমা সঙ্গীত – জোহান সেবাস্তেন বস
✬ উপমহাদেশে সুরসঙ্গীত – ওস্তাদ আলাউদ্দিন খান
✬ রেনেসীয় চিত্রকলা – জিওট্টো
✬ আধুনিক কার্টুন – উইলিয়াম হোগারথ
✬ আধুনিক সার্কাস – ফিলিপ অ্যাস্টলে

গণিত

✬ সংখ্যাতত্ত্ব – পিথাগোরাস
✬ গণনা – চার্লস ব্যাবেজ
✬ জ্যামিতি – ইউক্লিড
✬ বীজ গণিত ও অ্যালগারিদম –আল-খাওয়ারিজম
✬ ক্যালকুলাস – ভাসকরা
✬ ত্রিকোণমিতি – হিপ্পার চাস
✬ স্থিতিবিদ্যা – আর্কিমিডিস
✬ গতিবিদ্যা – গ্যালিলিও

পদার্থ বিদ্যা

✬ পদার্থ বিদ্যা – আইজ্যাক নিউটন
✬ আধুনিক পদার্থ বিদ্যা – আলবার্ট আইনিস্টাইন
✬ পারমানবিক পদার্থ বিদ্যা – আরনেস্ট রাদারফোর্ড
✬ আলোক বিদ্যা – জগদীশ চন্দ্র বসু
✬ তেজস্ক্রিয়তা – হেনরি বেরকল
✬ পারমানবিক বোমা – যে রবার্ট ওপেনহাইমার
✬ হাইড্রোজেন বোমা – এডওয়ার্ড টেলার
✬ কোয়ান্টাম তত্ত্ব – ম্যাক্স প্ল্যাঙ্ক
✬ আপেক্ষিক তত্ত্ব – আলবার্ট আইনিস্টাইন
✬ টেলিফোন – আলেকজান্ডার গ্রাহাম
✬ বাষ্প ইঞ্জিন – থমাস নিউকোমেন
✬ মোটর গাড়ি – কার্ল বেঞ্জ
✬ আধুনিক টায়ার – জন বয়রড ডানলফ
✬ রেডিও – লি ডি ফরেস্ট
✬ আধুনিক টেলিভিশন – অ্যালেন বি ডুমেন্ট
✬ সেমি কন্ডাক্টর – জ্যাক কিলবি
✬ আধুনিক যোগাযোগ প্রযুক্তি – সাইরাস ফিল্ড

কম্পিউটার বিজ্ঞান

✬ কম্পিউটার – চার্লস ব্যাবেজ
✬ আধুনিক কম্পিউটার বিজ্ঞান – এলান ম্যাথাসন
ডুরিং
✬ পার্সোনাল কম্পিউটার – আনড্রে থাই টুরং
✬ WWW (World Web Wide) – টিম বারনাস লি
✬ ই–মেইল – রে টমলিনসন
✬ ইন্টারনেট – ভিন্টন জি কারফ
✬ ইন্টারনেট সার্চ ইঞ্জিন – এলান এমটাজ
✬ ভিডিও গেমস – নোলেন বুশনেল
✬ অ্যানিমেশন – ওয়াল্ট জিডনি
✬ ভিজুয়েল বেসিক – এলান কুপার
✬ জাভা প্রোগ্রামিং ল্যাংগুয়েজ – জেমস গসলিং
✬ উইকিপিডিয়া – জিমি ওয়েলস

রসায়ন বিদ্যা

✬ রসায়ন বিদ্যা – জাবের ইবনে হাইয়ান
✬ আধুনিক রসায়ন বিদ্যা – অ্যান্টনি লরেন্ট
ল্যাভসেসিয়ে
✬ জৈব রসায়ন – ফ্রেডারিক উইলার
✬ পরমাণুবাদ – ডেমোক্রিটাস
✬ পর্যায় সারণি – দিমিত্রি মেন্ডেলিপ

জীব বিজ্ঞান

✬ জীববিদ্যা ও প্রাণীবিদ্যা – এরিস্টটল
✬ উদ্ভিদ বিদ্যা – থিওফ্রাস্টাস
✬ বিবর্তন জীববিদ্যা – চার্লস ডারউইন
✬ জীবের নামকরণ বিদ্যা – ক্যারোলাস লিনিয়াস
✬ বংশগতি বিদ্যা – গ্রেগর জোহান মেন্ডেল
✬ রক্ত সংবহনবিদ্যা – উইলিয়াম হার্ডে
✬ আধুনিক কোষতত্ত্ব – সোয়ান ও হাইডেন
✬ রোগ জীবাণু তত্ত্ব – লুই পাস্তুর
✬ বাস্তু সংস্থান – উইজেন উডাম
✬ প্রাণ শক্তি – জে জে বার্জেলিয়াম

চিকিৎসা বিজ্ঞান

✬ চিকিৎসা বিদ্যা ও ওষুদ – হিপক্রেটাস
✬ আধুনিক ওষুদ – ইবনে সিনা
✬ অ্যানাটমি – হেরোফিলাস
✬ আধুনিক সার্জারি – জাই ডি চাওলিয়েক
✬ প্লাস্টিক সার্জারি – সাসরুটা
✬ অস্থি সার্জারি – লরেন্স বলভেন
✬ হোমিও শাস্র – ডঃ স্যামুয়েল হ্যানিমেন

ভূগোল ও ইতিহাস

✬ ভূগোল – ইরাটস স্থনিস
✬ খনিজ বিদ্যা – জর্জ এগ্রিকোলা
✬ আধুনিক ভূবিদ্যা – জেমস হ্যাটন
✬ আধুনিক জ্যোতির্বিদ্যা – গ্যালেলিও গ্যালিলি
✬ ইতিহাস – হেরোডেটাস
✬ আধুনিক ইতিহাস – থুকি ডাইসিস
✬ ইসলামের ইতিহাস – আল–মাসুদি

অর্থনীতি ও ব্যবস্থাপনা

✬ অর্থনীতি – এডাম স্মিথ
✬ আধুনিক অর্থনীতি – পল স্যামুয়েলসন
✬ ইউরো মুদ্রা – রবার্ট মেন্ডেল
✬ ব্যবস্থাপনা – পিটার ড্রকার
✬ আধুনিক ব্যবস্থাপনা – লিলিয়ান মোলার গিলবাথ

রাষ্ট্রবিজ্ঞান

✬ রাষ্ট্রবিজ্ঞান – এরিস্টটল
✬ আধুনিক রাষ্ট্রবিজ্ঞান – নিকোলো
ম্যাকেয়াভেলি
✬ গণতন্ত্র – এরিস্টটল
✬ আধুনিক গণতন্ত্র – জন লক
✬ আমলাতন্ত্র – মাক্স বেবার
✬ আধুনিক জার্মান – প্রিন্স অটভান বিসমার্ক
✬ বিশ্ব গ্রাম ধারণা – মার্শাল ম্যাকলুহান
✬ ব্যক্তি ধারনা- জন স্টুয়াট মিল

ধর্ম ও তত্ত্ব

✬ মুসলিম জাতি – ইব্রাহীম (আঃ)
✬ ফিকাহ সাস্র – ইমাম আবু হানিফা
✬ বৌদ্ধ ধর্ম – গৌতম বুদ্ধ
✬ ইহুদি ধর্ম – মর্স
✬ ফ্যাসিজম – মুসলিনি
✬ কম্যুনিজম – কার্ল মার্ক্স
✬ অস্তিত্ববাদ – সরেন কিয়ারকগার্ড
✬ দ্বি–জাতি তত্ত্ব – মোহাম্মাদ আলী জিন্নাহ

জ্ঞানবিজ্ঞানের অন্যান্য শাখা

✬ ক্রিকেট – ডব্লিও জি গ্রেস
✬ ফুটবল – এবনেজার মরলে
✬ বিজ্ঞান – থ্যালিস
✬ আধুনিক বিজ্ঞান – রজারবেকন
✬ মৃত্তিকা বিজ্ঞান – জ্যাসিলি ডকুচেব
✬ কৃষি বিজ্ঞান – জোন্সেটাল
✬ মৎস্য বিজ্ঞান – পেটার আর্টেডি
✬ সুপ্রজনন বিজ্ঞান – গ্রেগর মেনডেল
✬ গ্যাস বিজ্ঞান – সেসিবিয়াস
✬ আলোকচিত্র বিদ্যা – লুইস ডাগুইরে
✬ প্রত্নবিদ্যা – থমাস জেফারসন
✬ স্থাপত্য বিদ্যা – জন ভন নিউম্যান
✬ আধুনিক শিক্ষাব্যবস্থা – লর্ড মেকেলে
✬ সমাজ বিজ্ঞান – অগাস্ট ক্যোঁৎ
✬ সমাজ কর্ম – জন এডামস

 

 

১। উপজাতীয়দের জীবনচিত্র নিয়ে রচিত গ্রন্থ কোনটি?
গ) কর্ণফুলী★

২। পুঁথি সাহিত্যের প্রথম সার্থক ও জনপ্রিয় কবি কে?
খ) ফকির গরীবুল্লাহ★

৩। বাংলা সাহিত্যে মধ্যযুগের অবসান ঘটে কখন?
ক) ১৭৬০★
৪। বাংলা সাহিত্যে “অবক্ষয়ের যুগ” কোনটি?
ঘ) ভারতচন্দ্রের মৃত্যুর পরবর্তী যুগ★

৫। কৃষ্ণের স্বর্গীয় নাম কি?
খ) বিষ্ণু★
৬। রবীন্দ্রনাথের মৃত্যুতে শোকার্ত নজরুল কোন কবিতাটি লিখেছিলেন?
খ) রবি হারা★
৭) সমকাল পত্রিকার প্রথম সম্পাদকের নাম কি?
ঘ) সিকান্দার আবু জাফর★

৮। হেমচন্দ্র বন্দোপাধ্যায় রচিত মহাকাব্যের নাম কি?
ক) বৃত্রসংহার★
৯। মৌমাছি কোন সাহিত্যিকের শ্রদ্ধ নাম?
গ) বিমল ঘোষ★
১০। বায়স শব্দের অর্থ কি?
গ) কাক★
১১। সনেটের এর রচিয়তা কে?
ক) পেত্রাক★
১২। জোঁক গল্পটি কোন গ্রন্থ থেকে সংগৃহীত?
ক) মহাপতঙ্গ★
১৩। বিভাবরী শব্দের অর্থ কি?
গ) রাত★
১৪। পূর্বাশার আলো কবিতাটি কোন কাব্যগ্রন্থ থেকে নেওয়া হয়েছে?
ক) সারা দুপুর★
১৫। নিচের কোনটি জসীমউদ্দীনের কাব্যগ্রন্থ?
ঘ) মাটির কান্না★

১৬। বাংলা একাডেমি থেকে প্রকাশিত মাসিক সাহিত্য পত্রিকার নাম —-
ক) বেঙ্গল গেজেট
১৭। সম্বাদ কৌমুদী পত্রিকাটি—–
খ) সাপ্তাহিক★
১৮। সুশিক্ষিত লোক মাত্রই স্বশিক্ষিত —- এই উক্তিটি কার?

গ) প্রমথ চৌধুরী★
১৯। খুকী চরিত্রটি রবীন্দ্রনাথের কোন ছোটগল্পের?
ক) কাবুলীওয়ালা★
২০। নিচের কোনটি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর রচিত নাটক?
ক) ডাকঘর★
২১। চর্যাপদের সবচেয়ে বেশি পদ রচনা করেছেন কে?
খ) কাহ্ন পা★
২২। বিদ্যাপতি কোন ভাষায় পদ রচনা করতেন?
ঘ) মৈথিলী★

২৩। চন্ডীচরণ মুনশীর “তোতা ইতিহাস” (১৮০৫) কোন ভাষা থেকে অনুদিত?
ক) ফারসি★
২৪। দ্বিজ বংশীদাসের জন্ম কোথায়?
গ) ময়মনসিংহে★
২৫। মনসামঙ্গলের আদি কবি কে?
ক) কানাহরি দত্ত★
২৬। ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগরকে ‘বিদ্যাসাগর’ উপাধি দেয়-
ক) সংস্কৃত কলেজ ★
২৭। কেরি সাহেবের মুনশী বলা হয় কাকে?

খ) রাম রাম বসুকে ★
২৮। কোনটি স্ত্রীবাচক বাংলা শব্দ?

গ) সতীন ★
২৯। কোনটি শুদ্ধ বানান?
ঘ) আকাঙক্ষা ★

৩০। ‘Attested’- এর পারিভাষিক শব্দ-
ক) প্রত্যায়িত ★
৩১। ‘কপোল’ শব্দের অর্থ কী?

খ) গাল ★
৩২। যৌগিক স্বরের উদাহরণ কোনটি?
গ) খাই ★
৩৩। ভাষার মূল উপকরণ কী?
ঘ) বাক্য ★

৩৪। বাংলা সাহিত্যের প্রাচীনতম শাখা কোনটি?
ক) কাব্য ★
৩৫। চর্যাপদের ভাষায় কয়টি ভাষার মিশ্রণ পরিলক্ষিত হয়?
খ) ৫ টি ★
৩৬। বরিশালের কবি বিজয়গুপ্ত সুলতান হোসেন শাহের আমলে কোন গ্রন্থ রচনা করে খ্যতি লাভ করেন?
গ) পদ্মপুরাণ ★
৩৭। ‘দৃষ্টিহীন’ কার ছদ্ম নাম?
ঘ) মধুসূদন মজুমদার ★

৩৮। নিচের কোনটি অর্ধ-তৎসম শব্দ?
ক) গিন্নী ★
৩৯। ‘আশার ছলনে ভুলি কি ফল লভিনু হায়’ বাক্যে ‘ছলনে’ কোন কারকে কোন বিভক্তি?

খ) করণে সপ্তমী ★
৪০। ‘নীল যে অম্বর=নীলাম্বর’ কোন সমাস?
গ) কর্মধারয় ★
৪১। কোন ভিটামিনের অভাবে মুখে ও জিহ্বায় ঘা হয়?

গ) ভিটামিন সি★
৪২। শরীরের কোন অংশ পুড়ে গেলে তৎক্ষণাৎ প্রাথমিক ব্যবস্থা কী নেয়া উচিত?

খ) ডিম ভেঙে শুধু সাদা অংশ দিয়ে প্রলেপ দেয়া★
৪৩। নিচের কোনটি যকৃতের রোগ?

গ) জন্ডিস★
৪৪। কোন ভিটামিন রক্ত জমাট বাঁধতে সাহায্য করে?
ঘ) ভিটামিন কে★

৪৫। একজন পূর্ণবয়স্ক লোকের প্রতিদিন পানি গ্রহণ করা প্রয়োজন প্রায়-
গ) ৫ লিটার ★
৪৬। উত্তর গোলার্ধে সূর্যের নিকটতম স্থানে অবস্থান করে-

খ) ২১ জুন★
৪৭। বাংলাদেশের ওপর দিয়ে যে ভৌগোলিক কাল্পনিক রেখা গেছে তার নাম কী?
গ) কর্কট রেখা★
৪৮। ঢাকার নাম জাহাঙ্গীরনগর রাখেন কে?

খ) সুবেদার ইসলাম খাঁন★
৪৯। কোন মোঘল সম্রাট বাংলার নাম দেন জান্নাতাবাদ?

খ) হুমায়ুন ★
৫০। বাংলায় ইউরোপীয় বণিকদের মধ্যে প্রথম এসেছিল-

খ) পর্তুগিজরা★
৫১। বাংলাদেশের সংবিধান সর্বপ্রথম কোন তারিখে গণপরিষদে উত্থাপিত হয়?
ক) ২৩ অক্টোবর, ১৯৭২★
৫২। ইরাক কুয়েত দখল করে নেয় কত সালে?
খ) ১৯৯০ ★
৫৩। ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদর দফতর কোথায়?
গ) ব্রাসেলস★
৫৪। আমেরিকার স্বাধীনতা ঘোষণা করা হয় কত সালে?
গ) ১৭৭৬ ★
৫৫। নিচের কোনটি জি-৮ ভুক্ত দেশ নয়?
ঘ) নেদারল্যান্ডস★

৫৬। গোবি মরুভূমি কোথায় অবস্থিত?

খ) এশিয়া★
৫৭। জাপান পার্ল হারবার আক্রমণ করে কখন?

খ) ৭ ডিসেম্বর, ১৯৪১★
৫৮। নিচের দেশগুলোর মধ্যে কোনটিতে এইডস রোগের সংক্রমণ হার সবচেয়ে বেশি?

খ) নাইজেরিয়া★
৫৯। দক্ষিণ আমেরিকায় অবস্থিত নয় কোন দেশটি?     গ) আলবেনিয়া ★
৬০। বৌদ্ধ সভ্যতার জন্য বিখ্যাত তক্ষশীলা অবস্থিত-   গ) পাকিস্তানে ★

৬১। স্রোতের অনুকূলে একটি নৌকা ৪ ঘণ্টায় ৪০ কিমি পথ যায়। যদি স্থির জলে ঐ নৌকার গতিবেগ ঘণ্টায় ৮ কিমি হয়, তবে নদীর স্রোতের গতিবেগ কত ছিল?   গ) ২ কিমি ★
৬২। .3x.03x.004 .4x. 05x .006 এর মান কত?
ক) ৩ ১০ ★
৬৩। সুদের হার ১৫% থেকে কমে ১৩% হওয়ায় এক ব্যক্তির ৬ বছরের সুদ ৮৪ টাকা কমে গেল। তার মুলধন কত?
ক) ৭০০ টাকা ★
৬৪। ১১টি সংখ্যার গড় ৩০; প্রথম ৫টি সংখ্যার গড় ২৫ ও শেষের ৫টি সংখ্যার গড় ২৮। ষষ্ঠ সংখ্যাটি কত?

গ) ৬৫ ★
৬৫। a+1 a=4 =৩ হলে , a3+ 1 a3 = কত?  খ) ৫২★

৬৬। কোন ত্রিভুজের তিনটি বাহুকে একইভাবে বর্ধিত করলে উৎপন্ন বহিঃস্থ কোণ তিনটির সমষ্টি-
গ) ৩৬০০★
৬৭। সমকোণী ত্রিভুজের সমকোণ সংলগ্ন বাহুদ্বয় যথাক্রমে ৩ ও ৪ সেমি হলে এর অতিভুজ-এর মান কত?

খ) ৫ সেমি★
৬৮। x-1 x =২ হলে, + x4 = কত?

ঘ) ৩৪★

৬৯। দুইটি সংখ্যার অনুপাত ৫ : ৮। উভয়ের সাথে ২ যোগ করলে অনুপাতটি ২ : ৩ হয়। সংখ্যা দুইটি কি কি ?

গ) ১০ ও ১৬★
৭০। ৮ জন পুরুষ বা ১৮ জন বালক একটি কাজ ৩৬ দিনে করতে পারে। ১৬ জন পুরুষ ও ১৮ জন বালক একত্রে সেই কাজের দ্বিগুণ একটি কাজ কত দিনে করতে পারবে-
ক) ২৪ দিনে★
৭১। নিম্নের ভগ্নাংশগুলোর মধ্যে কোনটি ক্ষুদ্রতম?
ঘ) ৮ ১৫★

৭২। শতকরা বার্ষিক হার সুদে ৭০০ টাকার ৫ বছরের সুদ ১০৫ টাকা হবে?  খ) ৩%★
৭৩। একটি সুষম বহুভুজের একটি অন্তঃকোণের পরিমাণ ১৩৫০ হলে, বহুভুজটির বাহুর সংখ্যা হবে-খ) 6 ★

৭৪। (3x+2)(2x-6)=(4-3x)(1-2x)-10 হলে a- এর মান হবে-খ) -2 ★

৭৫। ৭ জন লোকের গড় ওজন ৩ পাউন্ড কমে যায় যখন ১০ স্টোন ওজনের একজন লোকের পরিবর্তে নতুন একজন যোগদান করে। নতুন লোকটির ওজন কত?  গ) ৮ স্টোন★

৭৬। ৪ জন পুরুষ বা ৬ জন স্ত্রীলোক একটি কাজ ১৬ দিনে শেষ করতে পারলে ২ জন পুরুষ ও ৫ জন স্ত্রীলোক একত্রে কাজটি কত দিনে শেষ করতে পারবে-  গ) ১২ দিনে★
৭৭। (০.০১)২ এর মান কোন ভগ্নাংশটির
সমান?    ঘ) ১ ১০০০০★
৭৮। শতকরা বার্ষিক ৫ টাকা হার সুদে কত বছরে যে কোন আসল তার দ্বিগুণ হবে?   ঘ) ২০ বছর★

৭৯। কোন ত্রিভুজের তিন কোণের সমদ্বিখণ্ডকগুলো যে বিন্দুকে ছেদ করে, তাকে বলে-গ) অন্তকেন্দ্র ★
৮০। ১ মণ সমান কত কেজি?  ক) ৩৭.৩২ কেজি★

81. “Familiarity breeds contempt” বাক্যটির সঠিক বাংলা অনুবাদঃ  b. পরিচয়ে শত্রুতা বাড়ে ★
82. What is the antonym of ‘Pessimism’ ?b. Optimism ★

83. ‘Achilles heel’ means –
d. The fault which is small but can cause a person’s fall ★
84. Meaning of ‘Conjecture’ is related to –

d. Guess ★
85. Select the word/words that express the opposite meaning to the underlined word/words. The claim was found to be fraudulen.

d. genuine ★
86. Choose the correct synoynm for ‘Menacing’ –b. Alarming ★

87. ‘Fictitious’ means-c. Artificial ★
88. ‘Brief’ শব্দটির synonym হচ্ছে —-b. Momentary ★

89. What is the antonym of “Expel” ?
d. Admit ★
90. The word ‘Plurality’ means —?
d. The holding of more than one office at a time ★
91. Select the word closest in meaning to the word- রহস্যময়    b. Mysterious ★

92. Which sentence is correct ?
a. A new cabinet has been sworn thin Dhaka ★

93. The word ‘Lunar’ is related to –

c. Moon ★
94. Choose the correct antonym of the word ‘Sung’?
d. Asleep ★
95. A “congenial” work environment enables a worker to perform better (find out synonym).

b. Friendly ★
96. Choose the correct preposition. He didn’t ask me —– ; he kept me standing at the door.
d. in ★
97. Which of the following four alternatives is not a tree ?
a. Pagoda ★
98. I am convinced — the necessity of prudence. বাক্যের শূণ্যস্থানের সঠিক শব্দ বসবে —
d. of ★
999. These days everybody complains — pollution.

c. about ★
100. I have been suffering — fever for the last two days.
b. from ★

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

প্রাথমিকে প্রথম সাময়িক থেকে প্রশ্ন করার নির্দেশ স্ব-স্ব বিদ্যালয়ের

নিজস্ব প্রতিবেদক,১২ এপ্রিল: সারা দেশে  স্ব-স্ব প্রাথমিকে বিদ্যালয়ের প্রথম সাময়িক থেকে প্রশ্ন করার নির্দেশ দিয়েছে প্রাথমিক ও গনশিক্ষা মন্ত্রনালয়।  গত ৮ এপ্রিল প্রাথমিক ও গনশিক্ষা মন্ত্রনালয়ে বিভাগীয় উপপরিচালকদের নিয়ে সভায় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহিত হয়।

এদিকে প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্ব স্ব বিদ্যালয়ে প্রশ্নপত্র প্রনয়নের নির্দেশ দিয়েছে খুলনা বিভাগীয় উপপরিচালক মেহেরুননেসা।গত ১০ এপ্রিল,১১৩৬ নং স্বারকে তিনি এ নির্দেশ দেন।

খুলনা বিভাগীয় উপপরিচালক মেহেরুননেসা শিক্ষা বার্তাকে বলেন, গত ৮ এপ্রিল সচিব মহোদয়ের সাথে মিটিংএ সিদ্ধান্ত হয় যে প্রথম  সাময়িক থেকেই বিদ্যালয়ে প্রশ্ন করা শুরু হবে। কারন প্রতিটি বিদ্যালয় প্রশ্ন করলে প্রত্যেক শিক্ষক প্রশ্ন করার যোগ্যতা অর্জন করবে। এখন হাতে গোনা কয়েকজন শিক্ষক প্রশ্ন করে থাকে।

এ বিষয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মন্ত্রনালয়ের এ সিদ্দান্তকে স্বাগত জানাই বিভিন্ন শিক্ষক।

জিয়াউর রহমান নামে এক শিক্ষক কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানিযেছে। মোস্তাক আহমেদ জানিয়েছে এটা বড় ও বাস্তব সিদ্ধান্ত।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

অধ্যক্ষ সিরাজের ভয়ঙ্কর ‘খাস কামরায়’ যা হতো

নিজস্ব প্রতিবেদক,১২ এপ্রিল: ফেনীর সোনাগাজী ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলার নানা অপকর্মের তথ্য প্রকাশ পেয়েছে। জানা যায়, এর আগেও একাধিক ছাত্রীর শ্লীলতাহানির অভিযোগ রয়েছে এই সিরাজের বিরুদ্ধে।

অভিযোগ, তিনি একেক সময় একেক ছাত্রীকে ডেকে নিয়ে যৌন হয়রানি করতেন। পরীক্ষার প্রশ্ন দেওয়ার প্রলোভন দেখাতেন। এ অপকর্ম করতে অধ্যক্ষ মাদ্রাসা শিক্ষকদের কার্যালয় থেকে নিজ দফতরটি আলাদা ভবনে সরিয়ে নিয়েছেন। তিনি সাইক্লোন সেল্টারে দোতলায় দফতর করেছেন। তার এসব অপকর্মের অন্যতম সহযোগী মাদ্রাসার পিয়ন, কয়েকজন ছাত্র এবং স্থানীয় কয়েকজন রাজনৈতিক নেতা।

একাধিক ছাত্রী অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলা কর্তৃক যৌন হেনস্তার শিকার হলেও লোকলজ্জার ভয়ে প্রকাশ করেননি। গত ২৭ মার্চ সবশেষ যে ছাত্রীর শ্লীলতাহানি করেছেন তার দুই মাস আগে আরও এক ছাত্রীর শ্লীলতাহানি করেছেন। ওই ঘটনায় অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে লিখিতভাবে অভিযোগ করা হলেও কোনো বিচার হয়নি।

এর আগেও একাধিক ছাত্রীকে পিওন দিয়ে ডেকে নিয়ে নিজ কক্ষের মধ্যে শ্লীলতাহানি করতেন অধ্যক্ষ। ওইখানে অধ্যক্ষ সিরাজ খাস কামরাও তৈরি করেছেন। অধ্যক্ষ সিরাজ পিওনদের দিয়ে ডেকে নিয়ে ছাত্রীদের নানা প্রলোভনে ফেলে শ্লীলতাহানি করতেন। তার বিরুদ্ধে কেউ ভয়ে মুখ খুলতে পারতো না। তার বিরুদ্ধে যাতে কেউ কোনো কথা বলতে না পারে এজন্য নিজস্ব বাহিনী গড়ে তুলেছেন। মাদ্রাসার কয়েকজন ছাত্র তার অপকর্মের সহযোগী। এছাড়া পিওনরা তার অপকর্মের অন্যতম সহযোগী।

‘স্যার খুব খারাপ লোক। তার লালসার শিকার অনেকেই হয়েছিল। আমার শরীরে পর্যন্ত সে হাত দিয়েছিল ’- এমনটিই বলছেন ফেনীর সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসার ছাত্রী নাসরিন সুলতানা ফুর্তি। নাসরিন নুসরাত জাহান রাফির বান্ধবী। নাসরিন বলেন, স্যার আমার গায়েও হাত দিয়েছিল। সে সময়ও আমরা দুই বান্ধবী প্রতিবাদ করেছি। তিনি পরীক্ষায় ফেল করিয়ে দেওয়ার ভীতি দেখিয়ে প্রায় সবাইকে কু-প্রস্তাব দিতেন তিনি।

বৃহস্পতিবার আলিম পরীক্ষা শেষে হল থেকে বের হয়ে অধ্যক্ষ সিরাজ সম্পর্কে বলেন, এমন কোন মেয়ে নাই যার হাত তিনি ধরেনি। সে আমাকেও ছাড়েনি আমার শরীরেও হাত দিয়েছিল। এ ঘটনায় আমি সর্বপ্রথম নুসরাতকে বলেছিলাম। নুসরাত ঐদিন আমার বিষয় নিয়ে সিরাজ স্যারের সঙ্গে ঝগড়া করেছিল।

নুসরাতের চিঠিতে যে বান্ধবীর নাম আছে, সেই তানজিনা আক্তার সাথি বলেন, প্রতিবাদী ছিল নুসরাত। ওর প্রতিবাদে আমরা শিক্ষকের বিরুদ্ধে আন্দোলন করার সাহস সঞ্চয় করেছিলাম। এমনকি ইউএনও বরাবর আমরা একটি দরখাস্ত লেখার পরিকল্পনা করেছিলাম। কিন্তু কোনো এক কারণে সেটা জমা দেয়া হয়নি।

তিনি আরও বলেন, সিরাজ স্যার পরীক্ষার ফেল করিয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে আমাদের কু-প্রস্তাব দিতো। অনেক গরীব শিক্ষার্থী আছে। তারা হয়তো সে টাকা দিয়ে নতুন করে পরীক্ষা দিতে পারবে না। যার ফলে তারা কখনোই প্রতিবাদ করতে আসেনি। সেই সুযোগ নিতো সিরাজ স্যার।

৬ এপ্রিল অগ্নিদগ্ধ ছাত্রী নুসরাতকে উদ্ধার করতে আসা দুজনের একজন হলেন মাদ্রাসার নৈশপ্রহরী মো. মোস্তফা। পুলিশের একজন সদস্যকে নিয়ে ওই মেয়েকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নেওয়ার ব্যবস্থা করেন মোস্তফা।

তিনি জানান, ‘অধ্যক্ষ সিরাজ উদ দৌলা পরপর দুটি শ্লীলতাহানির ঘটনায় ধরা পড়েন। শুধু নুসরাত নয়, এর আগেও নিজ দপ্তরে একাধিকবার তাকে মেয়েদের সঙ্গে আপত্তিকর অবস্থায় দেখেছি। এতে তিনি আমাকে চাকরিচ্যুত করার হুমকি দেন। একবার তিনি প্রশ্ন করেছিলেন, ‘পাথরের সঙ্গে কপাল ঠুকলে মাথা ফাটবে, নাকি পাথর ফাটবে?’ আমি বলেছিলাম মাথাই ফাটবে।’

এই নৈশপ্রহরী আরো বলেন, ‘অধ্যক্ষের দপ্তর ছিল নিচতলায়। মেয়েদের সঙ্গে অশালীন আচরণের ঘটনা একাধিকবার আমার চোখে পড়েছে। তিনি নিচতলা সেফ মনে না করায় ‘সাপ ঢুকেছে, নিচতলার দপ্তর নিরাপদ নয়’ বলে পাশের ভবনের দ্বিতীয় তলায় তার অফিস স্থানান্তর করেন।’

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

এমপিওভুক্ত হলেন কারিগরির ২০০ শিক্ষক

বেসরকারি কারিগরি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত ২০০ শিক্ষক-কর্মচারীকে এমপিওভুক্ত করেছে কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর। এদের মধ্যে ১৭৫জন শিক্ষক কর্মচারীকে শাখা, শ্রেণি,ট্রেড ও স্পেশালাইজেশনের বিপরিতে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে। এ ২০০ শিক্ষক-কর্মচারীর মধ্যে এইচএসসি বিএম শিক্ষাক্রমের ১৫১ জন এবং এসএসসি ভোকেশনাল শিক্ষাক্রমের ৪৯ জন রয়েছেন। বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) কারিগরি শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এ সংক্রান্ত পৃথক আদেশ জারি করা হয়।

জানা গেছে, গতবছরের জুলাইয়ে জারি করা এমপিও নীতিমালার আলোকে এসব শিক্ষক কর্মচারীকে এমপিওভুক্ত করা হয়েছে। এমপিও অনুমোদন কমিটির ৩য় সভায় এসব শিক্ষক-কর্মচারীকে এমপিওভুক্ত করার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। সে প্রেক্ষিতে চলতি মাস থেকে তাদের এমপিও কার্যকর হবে। তালিকার লিংক নিচে

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

প্রাথমিকে স্ব স্ব বিদ্যালয়ে প্রশ্নপত্র প্রনয়নের নির্দেশ।

নিজস্ব প্রতিবেদক,১১ এপ্রিল: প্রাথমিক বিদ্যালয়ে স্ব স্ব বিদ্যালয়ে প্রশ্নপত্র প্রনয়নের নির্দেশ দিয়েছে খুলনা বিভাগীয় উপপরিচালক মেহেরুননেসা। গত ৮ এপ্রিল প্রাথমিক ও গনশিক্ষা মন্ত্রনালয়ে বিভাগীয় উপপরিচালকদের নিয়ে সভায় এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত গৃহিত হয।

সভায় সকল সাময়িক ও বার্ষিক পরীক্ষার প্রশ্নপত্র প্রনয়নের জন্য ব্যবস্থা গ্রহনের অনুরোধ করা হয়। এ বিষয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে মন্ত্রনালয়ের এ সিদ্দান্তকে স্বাগত জানাই বিভিন্ন শিক্ষক।

জিয়াউর রহমান নামে এক শিক্ষক কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানিযেছে। মোস্তাক আহমেদ জানিয়েছে এটা বড় ও বাস্তব সিদ্ধান্ত।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

Responsive WordPress Theme Freetheme wordpress magazine responsive freetheme wordpress news responsive freeWORDPRESS PLUGIN PREMIUM FREEDownload theme free