জেলার খবর

ঝিনাইদহে উৎপাদিত হচ্ছে জিংক সমৃদ্ধ ধান

জহুরুল ইসলাম হিরো, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ নতুন উদ্ভাবিত জিংক সমৃদ্ধ ধান পরীক্ষামূলকভাবে ঝিনাইদহে উৎপাদিত হচ্ছে। বিজ্ঞানীরা এ ধানের নাম দিয়েছেন ব্রি-৬২। সংশ্লিষ্টদের দাবি, বাংলাদেশ রাইস রিসার্চ ইনস্টিটিউট (ব্রি) উদ্ভাবিত এ ধানের আবাদ বাংলাদেশে এটাই প্রথম। চলতি আমন মৌসুমে ঝিনাইদহের আবহাওয়ায় নতুন জাতের এ ধানের ভালো ফলন হবে বলে আশা করছেন কৃষকরা।

ঝিনাইদহ সদর উপজেলার কুশাবাড়ীয়া, ঘোড়শাল, কালা লক্ষ্মীপুর, আড়মুখ, কালীগঞ্জ উপজেলার নাটোপাড়া, তালিয়ান, দুলালমুন্দিয়া মাঠসহ আশেপাশের এলাকার আড়াইশ জন চাষি এবার পরীক্ষামূলকভাবে জিংক সমৃদ্ধ ধান আবাদ করেছে। এ ধান আবাদে কৃষকদের প্রযুক্তিগত সহায়তা দিয়েছে এগ্রিকালচারাল এডভাইজরী সোসাইটি (আস) ও হারভেস্ট প্লাস বাংলাদেশ। গবেষকদের দাবি, জিংক সমৃদ্ধ ধান মানুষের বিশেষ করে শিশুদের রোগ প্রতিরোধের পাশাপাশি মেধা ও শারীরিক বিকাশের বিশেষ ভুমিকা রাখবে। তাই পর্যায়ক্রমে দেশের মাটি ও আবহাওয়ায় সহিষ্ণু উচ্চ ফলনশীল অন্যান্য ধানেও জিংক সংযুক্তির মাধ্যমে সকল ধানকেই জিংক সমৃদ্ধ করা যাবে। জিংক সমৃদ্ধ ধান আবাদে প্রযুক্তিদানকারী প্রতিষ্ঠান এগ্রিকালচারাল এডভাইজরী সোসাইটির (আস) নির্বাহী পরিচালক হারুন অর রশীদ জানান, চলতি আমন মৌসুমে জেলার আড়াইশ কৃষককে বীজ ও প্রযুক্তি সরবরাহ করা হয়েছে। তিনি জানান, জিংক সমৃদ্ধ ধানের উপকারিতা সম্পর্কে জানানোর পাশাপাশি কৃষকদের প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে।
এ জাত উদ্ভাবনকারী বিজ্ঞানী, বাংলাদেশ রাইস রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (ব্রি) প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড. আলমগীর হোসেন জানান, মানবদেহে জিংকের অভাব পূরণ করতে এই ধানে জিংকের মাত্রা বাড়িয়ে দেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, এই ধানে অন্য ধানের চেয়ে দ্বিগুণ পরিমাণ জিংক রয়েছে। এই ধানের ভাত খেলে মেধা বিকাশের পাশাপাশি শারীরিক বৃদ্ধি ঘটবে। ড. আলমগীর বলেন, সাধারণ ধানে ৯ থেকে ১২ মিলিগ্রাম জিংক থাকলেও এ জাতের (জিংক সমৃদ্ধ) ধানে জিংক রয়েছে ২৪ মিলিগ্রাম। এ ধানের উদ্ভাবনকারী আরেক বিজ্ঞানী হারভেস্ট প্লাস বাংলাদেশ এর কান্ট্রি ম্যানেজার ড. মো. খায়রুল বাসার বলেন, পৃথিবীর মধ্যে বাংলাদেশেই প্রথম জিংক সমৃদ্ধ ধান উৎপাদন করা হয়েছে। এটিই পওথম উচ্চ ফলনশীল জিংক সমৃদ্ধ জাত।
এবিষয়ে শুক্রবার ঝিনাইদহ সদর উপজেলার ঘোড়শাল ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে কৃষকদের নিয়ে এক প্রশিক্ষণ কর্মশালায় এই ধানের চাষপদ্ধতি, বীজ উৎপাদন ও সংরক্ষণ কৌশল, গুণাগুণ এবং ফলন সম্পর্কে কৃষকদের অবহিত করা হয়। ঘোড়শাল ইউপি চেয়ারম্যান পারভেজ মাসুদ লিল্টনের সভাপতিত্বে কর্মশালায় প্রশিক্ষক ছিলেন সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা ড. খান মনিরুজ্জামান, প্রাক্তন কৃষি কর্মকর্তা এবিএম ফজলুর রহমান, এগ্রিকালচারাল এডভাইজরী সোসাইটির (আস) নির্বাহী পরিচালক হারুন অর রশিদ, প্রশিক্ষণ কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম ও হারভেস্ট প্লাস বাংলাদেশের ওআরডিও মজিবুর রহমান। এতে ৪০ জন কৃষক অংশ নেন। ইউনিসেফের বরাত দিয়ে প্রশিক্ষণ কর্মশালায় জানানো হয়, দেশের ৪৫ ভাগ শিশুর জিংকের অভাবে মেধা ও শারীরিক বিকাশ বাঁধাগ্রস্থ হয়, যা জিংক সমৃদ্ধ ধানের ভাত খাওয়ার মাধ্যমে পূরণ করা সম্ভব। এছাড়া এ ধানে রয়েছে সর্বোচ্চ নয় ভাগ প্রোটিন।
কৃষি কর্মকর্তারা জানান, ব্রি-৬২ কোনো হাইব্রিড ধান নয়। দেশী ধানের সঙ্গে পরাগায়নের মাধ্যমে এই জাত উদ্ভাবন করা হয়েছে। ঝিনাইদহ জেলায় এ বছরই প্রথম ১০০ একর জমিতে এই বিশেষ জাতের
ধান চাষ হচ্ছে। এই ধান চাষে হেক্টর প্রতি প্রায় পাঁচ টন চাল উৎপাদিত হবে বলে তারা আশা প্রকাশ করেন।
ধান চাষী মোহাম্মদ আলী, আহাম্মদ আলী এবং ওমর আলী জানান, অন্যান্য ধানের মতোই জিংক সমৃদ্ধ ধানের চাষাবাদ খরচ একই। তবে উৎপাদন সময় কম লাগায় চাষিরা এ ধান আবাদ করে খুশি। তাদের মতে, অন্য জাতের ধান উৎপাদনে ১২০ থেকে ১৬০ দিন লাগলেও জিংক সমৃদ্ধ ব্রি-৬২ জাতের ধান উৎপাদনে সময় লাগে ১০০ দিন। চাষিরা জিংক সমৃদ্ধ ধান আবাদ সম্পর্কে জেনে অনেকেই এ ধান আবাদে আগ্রহী হচ্ছেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ঝিনাইদহে বিআরটিএ অফিসে চলছে দুর্নিতির মহোৎসব

জহুরুল ইসলাম হিরো, ঝিনাইদহ ঃ ঝিনাইদহ বিআরটিএ অফিস নানা অনিয়ম ও দুর্নিতির আখড়ায় পরিনত হয়েছে। এ অনিয়ম যেন কোনভাবেই থামানো যাচ্ছে না। রাজা যাই রাজা আসে কিন্তু দুর্নিতি আর অনিয়ম যেন নিয়মে পরিনত হয়ে গেছে। ভুক্তভোগীদের ধারনা বিআরটিএ মানেই যেন দুর্নিতির আস্তানা। ঝিনাইদহ বিআরটিএ অফিসও এর ব্যতিক্রম নয়।
ঝিনাইদহ অফিসে দায়িত্বরত মোটরযান পরিদর্শক শ্রী রাম কৃষ্ণ পোদ্দার এর বিরুদ্ধে উঠে এসছে অনিয়ম ও দুর্নিতির অভিযোগ। বিভিন্নভাবে মোটরযান মালিকদের হয়রানীর মাধ্যমে অর্থ আদায়ে তার তুলনা নেই। যেমন, ড্রাইভিং লাইসেন্স নবায়ন বাবদ তাকে কমপক্ষে ২০০০ টাকা টেবিল খরচ দেয়ার বিষয়টি এখন ওপেন সিক্রেট। মোটর সাইকেলের ড্রাইভিং লাইসেন্সের জন্য ড্রাইভিং টেস্ট পরীক্ষায় উত্তীর্ণদের নাম নোটিশ বোর্ডে ঝুলিয়ে দেয়ার সরকারী নিয়ম থাকলেও, অজানা কারনে তিনি কাউকে তোয়াক্কা না করে তার নিজের ক্ষমতা বলে তা করেন না।

বিআরটিএ অফিসটি মোটরযান মালিকদের সেবাদানের মাধ্যমে সরকারের একটি বড় ধরনের রাজস্ব আদায়কারী প্রতিষ্ঠান হলেও, সেবার বদলে মোটরযান মালিকরা হচ্ছেন হয়রানীর শিকার। মোটর সাইকেল মালিকেরা সরকারী রাজস্ব জমা দিয়ে আসার পর ফাইল টেবিলে দিতে গেলে ৩০০-১০০০ টাকা সালামি না দিলে ফাইল সরতে চাইনা। বিভিন্ন কাগজ আনতে বলে মোটরযান মালিকদের বিপাকে ফেলে হাতিয়ে নিচ্ছেন লক্ষ লক্ষ টাকা। সে কারনে কাগজ দিতে গিয়ে মোটরযান মালিকেরা শুধু নয়, হয়রানীর শিকার হচ্ছেন শোরুম মালিকেরাও।
পূর্ববতী সহকারী পরিচালক(এডি) বিলাস সরকার প্রতিষ্ঠানটিকে দুর্নিতির স্বর্গরাজ্যে পরিনত করেছিলেন। তার সময়ে রেখে যাওয়া তিন হাজার মোটর সাইকেলের ব্লু-বুক স্বাক্ষর না করেই মাগুরাতে বদলি হয়ে যান। পরবর্তিতে তিনি মাগুরার অফিস ফেলে ঝিনাইদহে স্বাক্ষর করতে আসেন। দেখা যায়, অনেক মোটরযান মালিক তাদের রেজিস্ট্রেশন নম্বর পায় নায়। মহেশপুরের রেজাউল নামে জনৈক এক ব্যাক্তির ২০১১ সালে জমা দিলেও সে রেজিস্ট্রেশন নাম্বার পায়নি। এমন নাম না জানা অনেক মোটরযান মালিককে ধরনা দিতে দেখা গেছে অফিসের বারান্দায় ব্লু-বুকের আশায়। জানা যায়, অজানা কারনে বিলাস সরকার পুরাতন ফাইলগুলির এমন অবস্থা করে রেখেছিলেন।
এছাড়াও সেখানে রয়েছে শক্তিশালী একটি দালাল চক্র যার কারনে সাধারণ মানুষ সরাসরি কোন ফাইল অফিসারদের কাছে নিয়ে যেতে পারেন না। বিআরটিএ’র এই প্রতিষ্ঠিত দুর্নিতির অন্যতম কারন দালালদের মাধ্যমে কাজের তদ্বির করানো। আর এই দালাল চক্র কর্মকর্তাদের ঘুষ দিয়ে সব ধরনের অন্যায় করে থাকে। সাধারন মানুষ এহেন হয়রানী ও দুর্নিতির হাত থেকে রক্ষা পেতে উর্ধতন কতৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

মহেশপুরে অন্তঃসত্ত্বার মৃত্যু, স্বামী-শাশুড়ি গ্রেফতার

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহের মহেশপুর উপজেলার ইশালডাঙ্গা গ্রামে স্বামীর নির্যাতনের শিকার হয়ে সাগরিকা খাতুন (২০) নামে চার মাসের এক অন্তঃসত্ত্বার মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দুপুর ২টার দিকে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। এর আগে তিনি মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে চিকিৎসাধাধীন ছিলেন।
নিহত সাগরিকা মহেশপুর উপজেলার সামন্তা গোপালপুর গ্রামের নাছির উদ্দীনের মেয়ে ও একই গ্রামের শফিকুল ইসলামের স্ত্রী। এ ঘটনায় পুলিশ শফিকুল ও শাশুড়ি পেয়ারা খাতুনকে গ্রেফতার করেছে।
মহেশপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এম শাহজাহান আলী খান জানান, সোমবার (১৪ জুলাই) যৌতুকের দাবিতে শফিকুল ও তার মা সাগরিকাকে মারধর করে বাবার বাড়ি পাঠিয়ে দেন। মঙ্গলবার (১৫ জুলাই) সাগরিকা অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে মহেশপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি ঘটলে বৃহস্পতিবার দুপুরে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।
বিকেল ৪টার দিকে ময়নাতদন্তের জন্য লাশ ঝিনাইদহ সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।
এ ব্যাপারে সাগরিকার বাবা নাছির উদ্দীন বাদী হয়ে মহেশপুর থানায় মামলা করেছেন। এর পর পুলিশ সাগরিকার স্বামী শফিকুল ইসলাম ও শাশুড়ি পেয়ারা বেগমকে গ্রেফতার করেছে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ঝিনাইদহে স্ত্রী অপহরণের সময় স্বামী আটক!

ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ ঝিনাইদহ শহরের চাকলাপাড়া সার্কিট হাউস এলাকা থেকে স্ত্রী অপহরণ করতে গিয়ে বেরসিক জনতার খপ্পরে পড়ে রইচ উদ্দীন নামে এক স্বামীকে শ্রীঘরে যেতে হয়েছে। বুধবার বিকেলে এ ঘটনা ঘটে। তিনি শৈলকুপা উপজেলার ব্রহ্মপুর গ্রামের বাসিন্দা।
ঝিনাইদহ গোয়েন্দা পুলিশের উপ পরিদর্শক (এসআই) রফিকুল ইসলাম জানান, স্বামীর দায়ের করা মামলায় হাজিরা দিতে আসেন নাসরিণ নামে এক গৃহবধূ। তার বাবার বাড়ি যশোরের চৌগাছা উপজেলার বুরুন্দিয়া গ্রামে।
মামলার হাজিরা দিয়ে চৌগাছা যাওয়ার সময় স্বামী রইচ উদ্দীন লোকজন নিয়ে তাকে ও তার মাকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। এসময় ঝিনাইদহ শহরের সার্কিট হাউস এলাকায় পৌঁছালে তাদের চিৎকারে লোকজন ছুটে এসে নাসরিন ও তার মাকে উদ্ধার করে গোয়েন্দা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করে।
ডিবি পুলিশ অভিযান চালিয়ে পরে রইচকে আটক করে ঝিনাইদহ সদর থানায় সোপর্দ করে। পুলিশ জানায়, দাম্পত্য কলহের কারণে স্বামী রইচ তার স্ত্রী নাসরিনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

ঢাবিতে সাংবাদিকদের উপর হামলার ঘটনায় সিডি নিউজ২৪.কম’ এর নিন্দা

ডেস্ক: ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে সূর্য সেন হলের ছাত্রলীগ নেতারা পিটিয়ে আহত করেছে সাংবাদিক সমিতির সদস্য ইন্ডিপেন্ডেন্ট পত্রিকার গলিব আশরাফ, কালের কন্ঠের রফিকুল ইসলাম, সময় টিভির মাসুদুর রহমান, এশিয়ান টিভির আরাফাত রহমান সেতুসহ দেশের বিভিন্ন গণমাধ্যমে ঢাবি প্রতিনিধি হিসেবে কর্মরত অন্তত ১৫ জন সাংবাদিককে। এদের মধ্যে ৫ জনের অবস্থা গুরুতর। সংবাদ সংগ্রহকালে প্রিন্ট ও ইলেক্ট্রিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের উপর হামলা ও নির্যাতনের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছে দেশের অন্যতম অনলাইন নিউজ পোর্টাল সিডি নিউজ২৪.কম।
এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে সিডি নিউজ২৪.কম এর পক্ষে সম্পাদক আনজাম খালেক বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগ কর্তৃক সাংবাদিকদের উপর হামলা একটি ন্যাক্কারজনক ঘটনা। এছাড়া গত কয়েকমাসে রাজধানী ঢাকা, রাজশাহীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ইন্টার্নি চিকিৎসক ও ছাত্রলীগের পেটোয়া বাহিনীর হাতে বেশ কয়েকজন সাংবাদিক নির্মমভাবে নির্যাতিত হয়েছেন। এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলে গণতন্ত্র ও স্বাধীন সাংবাদিকতার পথ রুদ্ধ হবে এবং দেশ অনিশ্চয়তার দিকে চলে যেতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে। সাংবাদিক নির্যাতন বন্ধে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার জন্য সরকারের কাছে দাবিও জানান তিনি। বিবৃতিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যলয়ে সাংবাদিকদের উপর হামলাকারীদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করা হয়।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

পাহাড়ি জেলার শিক্ষাব্যবস্থা নিয়ে নতুন চুক্তি

ঢাকা: দেশের তিন পার্বত্য image_83570_0জেলায় এখন থেকে মাধ্যমিক শিক্ষা কার্যক্রম পরিচালনা করবে স্থানীয় জেলা পরিষদগুলো। আজ ঢাকায় এ সংক্রান্ত একটি চুক্তি সই হয়েছে।

তিন পাহাড়ি জেলায় প্রাথমিক শিক্ষাক্ষেত্রে আগেই স্থানীয় কাউন্সিলের হাতে দায়িত্ব দেয়া হলেও মাধ্যমিক স্তরে তা হস্তান্তর হল আজই। কিন্তু এই পদক্ষেপ পাহাদের শিক্ষাব্যবস্থায় নতুন কি যোগ করতে পারবে?

পার্বত্য শান্তিচুক্তির শর্ত অনুসারে এই উদ্যোগের মাধ্যমে স্থানীয় স্কুলগুলোতে শিক্ষক নিয়োগ এবংপরিচালনা সংক্রান্ত কার্যক্রম চলে যাবে জেলা পরিষদগুলোর হাতে। এতদিন এই দায়িত্ব ছিল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ডের কাছে।

তবে শিক্ষা কারিকুলাম আপাতত পরিবর্তিত হচ্ছে না। এমনটাই জানান শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

তিনি বলেন, “আঞ্চলিক পরিষদ অন্যান্য অনেক বিষয়ে দায়িত্ব পালন করেন তাদের হাতে এবার প্রাথমিকের পর মাধ্যমিক শিক্ষা ব্যবস্থানার দায়িত্ব দেয়া হলো। কারিকুলাম নিয়ে এখনও ভাবা হয়নি। সেটা ভবিষ্যতে দেখা যেতে পারে”।

শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং তিন পার্বত্য জেলার পরিষদের চেয়ারম্যানদের মধ্যে এক চুক্তির মাধ্যমে ঢাকায় আনুষ্ঠানিকভাবে এই দায়িত্ব হস্তান্তর করা হয়।

সরকার বলছে এটি পাহাড়ের শিক্ষাক্ষেত্রে একটি ইতিবাচক পদক্ষেপ। তবে বিষয়টি নিয়ে সমন্বয়হীনতার প্রশ্ন রয়েছে পাহাড়ের শিক্ষা সংশ্লিষ্টদের মনে ।
রাঙামাটির স্থানীয় বেসরকারি একটি স্কুলের শিক্ষক শিশির চাকমা তেমনটাই জানান।

তিনি বলেন, “অনেকদিন পর মাধ্যমিক শিক্ষাটা সরকার জেলা পরিষদের হাতে হস্তান্তরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে যা খুবই ভালো। তবে এর বাস্তবায়ন কিভাবে হবে সেটা পরিষ্কার নয়। কারণ প্রাথমিক শিক্ষার দায়িত্ব অনেক আগেই হস্তান্তর হয়েছে এবং যাই হোক চলছে কিন্তু এসব উদ্যোগ আঞ্চলিক ও জেলা পরিষদের সমন্বয় করে চলার কথা থাকলেও আমার কাছে এক ধরনের সমন্বয়হীনতা চোখে পড়েছে।”

তবে বাংলাদেশের শিক্ষাব্যবস্থা নিয়ে কাজ করে এমন প্রতিষ্ঠান যেটি ক্যাম্পে নামে পরিচিত তার প্রধান রাশেদা কে চৌধুরী বলেন, প্রাথমিক ক্ষেত্রে স্থানীয় পরিষদের হাতে দায়িত্ব আব দেয়ার পর কিছু কিছু ক্ষেত্রে সমন্বহীনতা তারা দেখেছেন।

তবুও বিষয়টি ইতিবাচক বলে তিনি জানান।

তিনি বলেন, “এই উদ্যোগের কথা তো আমরা অনেক আগে থেকেই বলে আসছি। শিক্ষক নিয়োগ সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত নেয়ার ক্ষমতা স্থানীয়দের হাতে থাকলে কমিউনিটি থেকে শিক্ষক নিয়োগ হলে শিক্ষার্থী ঝরে পরার সংখ্যা হ্রাস পাবে।”

১৯৯৭ সালে পার্বত্য শান্তি চুক্তির এতবছর পর এমন উদ্যোগে রাশেদা কে চৌধুরী বলেন, বিষয়টি আরো আগেই হওয়া জরুরী ছিল বলে তিনি মনে করেন।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের তথ্যমতে, এই তিন জেলায় মাধ্যমিক স্কুলের সংখ্যা তিরশোরও কম। যার বেশিরভাগ রাঙামাটিতে। এর মধ্যে প্রায় কুড়িটি সরকারি।

আর সরকারি অনুদানভূক্ত স্কুলের সংখ্যা দেড়শোর ওপরে। সরকার বলছে এখন থেকে স্কুলগুলোর শিক্ষক নিয়োগ থেকে শুরু করে প্রতিষ্ঠানগুলোর ব্যবস্থাপনা চলবে জেলা পরিষদের সিদ্ধান্তে।

মাধ্যমিক স্কুলগুলোতে আগের মতোই বাজেট বরাদ্দ এবং পরীক্ষা পদ্ধতি চলবে সরাসরি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমেই।- – বিবিসি।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

তীব্র গরমের পর : রাজধানীতে স্বস্তির বৃষ্টি

নিজস্ব বার্তা : টানা কয়েকদিনের তীব্image_163558র দাবদাহের পর গতকাল রাজধানীবাসীকে স্বস্তি এনে দেয় একপশলা বৃষ্টি। ছেঁড়াখোড়া মেঘ জমতে জমতে দুপুর থেকেই রাজধানীতে নামে পুরোদমে বৃষ্টি। দুপুর দেড়টার পর থেকেই বৃষ্টি শুরু হয়ে চলে প্রায় পৌনে চারটা পর্যন্ত। যদিও এরপরও কোথাও কোথাও হালকা বা মাঝারি ধরনের বৃষ্টি হয়েছে।

আবহাওয়া অফিস জানায়, গতকাল রাজধানীতে ৩৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বৃষ্টির আগে তাপমাত্রা ৩৫.৭ থাকলেও পরবর্তীতে তা কমে ২৫.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে আসে।

বৃষ্টিতে দৈনন্দিন কাজকর্মে কিছুটা ব্যাঘাত ঘটলেও সানন্দেই তা মেনে নিয়েছেন বৃষ্টির অপেক্ষায় থাকা নগরবাসী।

উচ্ছ্বসিত অনেকে নেমে পড়েন বৃষ্টিতে। কাজকর্মে খানিকটা বিরতি দিয়ে তাদের অনেকেই প্রাণভরে ভিজেছেন বৃষ্টিতে। খোলা মাঠে বা বাড়ির ছাদে শিশুরাও উপভোগ করেছেন বৃষ্টি। বৃষ্টির ফোটা আর মৃদু বাতাসে প্রাণ জুড়িয়ে উপভোগ করে তারা এই প্রশান্তিকে।

আবহাওয়া অধিদফতরের আবহাওয়াবিদ জাহিদ হাসান সংবাদকে জানান, আজও বৃষ্টি হতে পারে। এছাড়া আগামী ২৪ ঘণ্টার আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রাজশাহী, রংপুর, খুলনা ও সিলেট বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা/ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে বলেও জানান তিনি।

এছাড়া আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রাজশাহী, যশোর ও কুষ্টিয়া অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে তীব্র তাপ প্রবাহ এবং রাঙ্গামাটি, কুমিল্লা, চাঁদপুর, মাইজদীকোর্ট, ফেনী, পটুয়াখালী ও খেপুপাড়া অঞ্চলসহ ঢাকা বিভাগ এবং খুলনা ও রাজশাহী বিভাগের অবশিষ্ট অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহ বয়ে যাচ্ছে।

লঘুচাপের প্রভাবে বরিশালে বৃষ্টি

বরিশাল জেলা বার্তা  জানান,

বঙ্গোপসাগরে সৃষ্ট নিম্নচাপ শেষ পর্যন্ত দুর্বল হয়ে লঘুচাপে পরিণত হয়ে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ুকে উপকূলীয় এলাকা ও এর কাছাকাছি পৌঁছে দেয়ায় বহু কাঙ্ক্ষিত বৃষ্টিতে দক্ষিণাঞ্চলের বেশিরভাগ এলাকাই শিক্ত হয়েছে শনিবার। ফলে আগের দিনের প্রায় ৩৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা শনিবার ৩২.৬ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে আসে। তবে বরিশালসহ দক্ষিণাঞ্চলের সব নদী বন্দরগুলোতে ২ নম্বর সতর্ক সংকেত জারি করা হয়েছে। ফলে অনধিক ৬৫ ফুট দৈর্ঘ্যের সব ধরনের যাত্রীবাহী নৌযান চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে বিআইডবিস্নউটিএ। পায়রা, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার সমুদ্র বন্দর সমূহকে ৩ নম্বর স্থানীয় সর্তক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলেছে আবহাওয়া বিভাগ। পাশাপাশি উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত সব মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলার সমূহকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে এবং গভীর সাগরে বিচরণ না করতে নির্দেশ দিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ।

গত তিনদিনের দুঃসহ তাপপ্রবাহের পরে বরিশালে সকাল থেকেই মেঘের ঘনঘটা ছিল। বেলা বাড়ার সঙ্গে আকাশ ভরা মেঘ বৃষ্টিকে বয়ে নিয়ে আসে দক্ষিণে সাগর পাড়ের কুয়াকাটা থেকে বরিশাল হয়ে মাদারীপুর পর্যন্ত। শনিবার দুপুর ১২টার আগে বরিশালে ৮ মিলিমিটার বৃষ্টির সঙ্গে কয়েকদফা দমকা বাতাসে নগর জীবনে স্বস্তি নেমে আসে। এ সময় মাত্র ১৫ সেকেন্ডের জন্য বাতাসের তীব্রতা ৪৮ কিলোমিটারে উন্নত হলেও কোথাও কোন ক্ষয়ক্ষতি হয়নি। কলাপাড়া রাডার স্টেশনে ৫ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বাতাসের গতি ছিল ৩৬ কিলোমিটার।

আবহাওয়া বিভাগের মতে পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত নিম্নচাপটি দক্ষিণ-পশ্চিম দিকে সরে গিয়ে দুর্বল হয়ে পূর্ব-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর এলাকায় সুস্পষ্ট লঘুচাপ হিসেবে অবস্থান করছে।

তবে শনিবার সকাল ৯টায় প্রকাশিত আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং ঢাকা, রাজশাহী, রংপুর, খুলনা ও সিলেট বিভাগের দু’এক জায়গায় অস্থায়ী দমকা থেকে ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি ও বজ্রসহ বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনার কথা বলা হয়েছিল। পশ্চিম-মধ্য বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় অবস্থানরত সুস্পষ্ট লঘুচাপের প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগরে গভীর সঞ্চালনশীল মেঘমালা সৃষ্টি হচ্ছে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ। উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্র বন্দরসমূহের উপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার কথাও জানিয়েছে আবহাওয়া বিভাগ। অবশ্য আবহাওয়া বিভাগ রাজশাহী, যশোর ও কুষ্টিয়া অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ এবং রাঙ্গামাটি, কুমিল্লা, চাঁদপুর, মাইজদিকোর্ট, ফেনী, পটুয়াখালী ও খেপুপাড়া অঞ্চলসহ ঢাকা বিভাগ এবং খুলনা ও রাজশাহী বিভাগের অবশিষ্ট অঞ্চলসমূহের উপর দিয়ে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের তাপপ্রবাহের কথাও বলা হয়েছে।

স্বস্তির বৃষ্টি যশোরে

যশোর অফিস জানায়, শনিবার দুপুরে দীর্ঘ প্রতিক্ষীত স্বস্তির বৃষ্টিতে যশোরে খরার অবসান হয়েছে। কেটেছে আবহাওয়ার রুক্ষ্মতা। এবার তাপমাত্রা প্রায় ৪৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত ওঠায় মানুষের জীবনযাত্রা অসহনীয় হয়ে উঠেছিল।

খরায় যশোরে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে পাট ও সবজি চাষিরা। শনিবার সকালেও বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে সবজি ও পাট ক্ষেত বৃষ্টির অভাবে শুকিয়ে যাচ্ছে। পাটের কচি পাতা নুয়ে পড়েছে। আঞ্চলিক কৃষি অফিস সূত্রে জানা গেছে, যশোরে এবার দুই লাখ ৭৬ লাখ হাজার ৯৮ বেল পাট উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এ জন্য দুই লাখ ৫৩ হাজার ২৮০ হেক্টরে আবাদের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়। খরার কারণে ২৫ শতাংশ জমিতে আবাদ করা যায়নি। সবজি চাষ হয়েছে প্রায় দেড় হাজার হেক্টরে। কৃষি বিভাগের যশোর আঞ্চলিক উপ-পরিচালক শেখ হেমায়েত হোসেন জানিয়েছেন, জেলায় প্রতি বছর দেড় হাজার হেক্টর জমিতে বিভিন্ন সবজি আবাদ হয়ে থাকে। প্রচ- খরায় অধিকাংশ সবজি ক্ষেত ফেটে চৌচির। সবজিও নষ্ট হচ্ছে। বৃষ্টির দেখা না মেলায় অনেক চাষি সবজির চাষ করেননি লোকসানের আশঙ্কায়। শনিবারের বৃষ্টিতে কিছুটা হলেও সবজি ও পাটের উপকার হবে।

বড় ধরনের বিপর্যয় দেখা দিয়েছে মাছ চাষে। যশোর জেলা মৎস্য কর্মকর্তা রমজান আলী জানান, যশোরে চলতি বছর এক লাখ ২০ হাজার মেট্রিক টন মাছ উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রা ধরা হয়েছে। এর দাম প্রায় এক হাজার কোটি টাকা। এই মাছ উৎপাদনের লক্ষ্যে রেণু উৎপাদন করা হবে এক লাখ ৬০ হাজার কেজি। রেণুর ওপরই নির্ভর করে মাছ উৎপাদনের বিষয়টি। কিন্তু খরার কারণে রেণু উৎপাদন যেমন ব্যাহত হয়েছে তেমনি তীব্র তাপে পুকুর ও জলাশয়ের রেণু মরে মারাত্মক ক্ষতি হচ্ছে। এ কারণে এবার মাছের উৎপাদন প্রায় অর্ধেক কম হবে। এদিকে পুকুরে পানি না থাকায় মাছ চাষিরা রেণু উৎপাদনকারীদের কাছ থেকে রেণু কিনে পুকুরে অবমুক্ত করতে পারছেন না। যে বৃষ্টি হয়েছে তাতে মাছ চাষে কোন উপকার হবে না বলে উৎপাদনকারীরা জানিয়েছেন।

 

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

চুয়াডাঙ্গায় বিএনপির প্রতিবাদ সমাবেশ

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি : সারা দেশে গুimage_82430_0ম-খুন ও বিএনপির চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মামলা বিশেষ আদালতে স্থানান্তরের প্রতিবাদে চুয়াডাঙ্গায় প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার বেলা ১১টায় স্থানীয় শহীদ হাসান চত্বরে এ প্রতিবাদ সামাবেশ হয়।

চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির আহ্বায়ক অহিদুল ইসলাম বিশ্বাসের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে কেন্দ্রীয় যুবদলের শিল্প বিষয়ক সম্পাদক ও চুয়াডাঙ্গা জেলা বিএনপির যুগ্ম-আহবায়ক  মাহমুদ হাসান খান বাবু, ওয়াহেদুজ্জামান বুলা, আব্দুল জব্বার সোনা ও মজিবুল হক মালিক মালিকসহ উপজেলার নেতারা বক্তব্য দেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

নীলফামারীতে এসএসসি পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যা

নীলফামারী : এসএসসি পরীক্ষায় ভালো ফলাফল না হওয়ার আশঙ্কায় আত্মহত্যা করেছে রাফাত হাসান নয়ন (১৬) নামের এক এসএসসি পরীক্ষার্থী। সে জেলার ডোমার উপজেলার ভোগattohotta_37252ডাবুড়ি ইউনিয়নের শফিকুল ইসলাম সবুজের ছেলে।

পারিবারিক সূত্র জানায়, শনিবার দুপুরে তার থাকার ঘরে ফ্যানের সঙ্গে গলায় দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে।

নয়ন চিলাহাটি মার্চেন্ট উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এবার এসএসসি পরীক্ষায় অংশ নেয়। পরীক্ষা শেষ হবার পর থেকে ফল ভাল না হওয়া নিয়ে আশঙ্কায় ছিল সে।

এদিকে, নয়ন জিপিএ-৪.৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে বলে ইন্টারনেট সুত্রে জানা যায়।

ডোমার থানার অফিসার ইনচার্জ কফিল উদ্দিন জানান, এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যু মামলা করা হয়েছে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

মেঘনায় লঞ্চডুবি, ২৯ লাশ উদ্ধার

মুন্সিগঞ্জ সংবাদাদাতা : হঠাৎindex কালবৈশাখী ঝড়ে বৃহস্পতিবার বিকালে মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ায় মেঘনা নদীতে ৩০০ যাত্রী নিয়ে এমভি মিরাজ-৪ নামের লঞ্চটি ডুবে যায়। শুক্রবার বিকাল সোয়া ৫টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত ২৯ জনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এখনো শতাধিক যাত্রী নিখোঁজ রয়েছেন।
বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ কর্তৃপক্ষের (বিআইডব্লিউটিএ) চেয়ারম্যান মো. শাসছুদ্দোহা খন্দকার জানান, ৫০ জনের মতো যাত্রী রক্ষা পেয়েছেন অন্যরা নিখোঁজ।

বৃহস্পতিবার বেলা দুইটার দিকে রাজধানীর সদরঘাট থেকে এমভি মিরাজ-৪ নামে লঞ্চটি শরীয়তপুরের সুরেশ্বরের উদ্দেশে ছেড়ে যায়। পথে বেলা সাড়ে তিনটার দিকে গজারিয়ার ইমামপুর ইউনিয়নের দৌলতপুর কালিপুরা এলাকায় পৌঁছালে লঞ্চটি ঝড়ের কবলে পড়ে ডুবে যায়।

উদ্ধারকারী জাহাজ প্রত্যয় ও দুর্বার ডুবে যাওয়া লঞ্চটি উদ্ধারে অভিযান চালাচ্ছে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

রক্তমাখা মাইক্রোবাস জব্দ, আটক ৩

শিক্ষাবার্তা.কম, nur-hossain-190x130_35248_35259নারায়ণগঞ্জ : সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র ও ২নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর নজরুল ইসলামসহ ৭ জন অপহরণের পরে হত্যা মামলার প্রধান আসামি কাউন্সিলর নূর হোসেনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে রক্তমাখা মাইক্রোবাস জব্দ ও তিনজনকে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার দুপুর সোয়া ১টায় জেলা পুলিশ কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার ড. খন্দকার মহিউদ্দিন এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

এসময় ঢাকার ডিআইজি গোলাম ফারুকও উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সুপার ড. খন্দকার মহিউদ্দিন জানান, সিআইডির ফরেনসিক বিভাগ মাইক্রোবাসটি এই হত্যার কাজে ব্যবহৃত হয়েছে কিনা তার আলামত পরীক্ষা করছে। এছাড়া, আটককৃতদেরও জিজ্ঞাসাবাদ চলছে।

এর আগে, সিদ্ধিরগঞ্জের শিমরাইল মোড় টেকপাড়া এলাকায় অবস্থিত নূর হোসেনের বাড়ির চারপাশ সকাল সাড়ে ১০টা থেকে ঘেরাও করে রাখে পুলিশ। পরে বেলা ১১টায় নূর হোসেনের বাড়িতে তল্লশি শুরু করে। তার বাড়ির গ্যারেজ থেকে একটি রক্তমাখা মাইক্রোবাস উদ্ধার করেছে পুলিশ।

অভিযান চলাকালে গণমাধ্যমের কোনো কর্মীকে বাড়ির ভেতরে ঢুকতে দেওয়া হয়নি ।

নারায়ণগঞ্জ জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শহিদুল ইসলাম সকালের অভিযানের বিষয়টি নিশ্চিত করেছিলেন।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

কালবৈশাখী ঝড়ে সুনামগঞ্জে নিহত ৪

সুনামগঞ্জ : সুনামগঞ্জে কালবৈশাখী ঝড়ে শিশুসহ চারজন নিহত হয়েছে। এসময় বিধ্বস্ত হয়েছে অন্তত শতাধিক বাড়ি-ঘর। বোরবার দিবাগত রাত ২টার দিকে ধর্মপাশা উপজেলায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন সুখাইড়-রাজাপুর ইউনিয়নের নয়াহাটি গ্রামের কাছু মিয়া (৩৫), দক্ষিণ সুখাইড়-রাজাপুর ইউনিয়নের বড়কান্দা গ্রামের বেবি আক্তার (১০), মধুপুর গ্রামের সামছু মিয়া (৬২) এবং দক্ষিণ বংশীকুন্ডা ইউনিয়নের দাকিয়া গ্রামের দুদু মিয়া (৩৮)।

জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ ইয়ামিন চৌধুরী ঝড়ে চারজনের মৃত্যুর বিষয়টি  শীর্ষ নিউজকে নিশ্চিত করেছেন। তিনি আরও জানান, তাদেরকে প্রশাসনের পক্ষ থেকে আর্থিক অনুদান প্রদান করা হবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

জামালপুরে কিশোরীকে গণধর্ষণ

জামালপুর সংবাদদাতা : ঢাকা কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে ছেড়ে আসা দেওয়ানগঞ্জগামী কমিউটার এক্সপ্রেস ট্রেন শুক্রবার রাতে দেওয়ানগঞ্জের পূর্ববর্তী ইসলামপুর স্টেশনে পৌঁছলে ট্রেনযাত্রী ১৬ বছরের কিশোরীকে জোরপূর্বক ট্রেন থেকে অপহরণ করে গণধর্ষtrain1ণ করা হয়।

কমলাপুর থেকে কমিউটার ট্রেনে দেওয়ানগঞ্জ আসার পথে ইসলামপুর স্টেশনে পৌঁছামাত্র ২-৩ জন যুবক তাকে মুখ চেপে ধরে সিএনজিতে তুলে নিয়ে অজ্ঞাত স্থানে একটি বাড়িতে মুখ বেঁধে ধর্ষণ করে। মধ্যরাতে দেওয়ানগঞ্জগামী ব্রহ্মপুত্র এক্সপ্রেস ট্রেনে মুখ বাঁধা অবস্থায় রেখে যায়। ট্রেনটি দেওয়ানগঞ্জ স্টেশনে পৌঁছলে. ওই ধর্ষকরা আবারও অপহরণ করার চেষ্টা করলে স্থানীয় লোকজন বিষয়টি টের পেয়ে দু’জনকে আটক করে। আটককৃতরাই তরুণীটিকে ধর্ষণ করেছে বলে ধর্ষণের শিকার তরুণী জানায়। আটককৃতরা হচ্ছে ইসলামপুর উপজেলার উত্তর সিরাজাবাদের কাঠ মিস্ত্রী জানিব পলোবান্ধার ও বাহাদুরপুর গ্রামের মোটরসাইকেল চালক শিক্কু মিয়া। ধর্ষিতার বাড়ি দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার বাহাদুরাবাদ ইউনিয়নের ফারাজীপাড়া গ্রামে। দেওয়ানগঞ্জ রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ কাজী হারুন জানান. শনিবার দুপুর ২টা পর্যন্ত তিনি কর্মস্থলে ছিলেন না। গতকাল শনিবার আসামিদের জামালপুর পাঠানোর কথা ছিল।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

দু’দল গ্রামবাসীর সংঘর্ষ ঝিনাইদহে বিএনপি নেতা খুন

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি : ঝিনাইদহের শৈলকুপায় বিএনপি সমর্থিত দু’দল গ্রামবাসীর মধ্যে সংঘর্ষে আয়ুব হোসেন নামে এক বিএনপি নেতা খুন হয়েছেন। এসময় হামলা-পাল্টা হামলায় অন্তত ১৫ জন আহত ও ২০ বাড়ী ঘর ভাঙচুরের ঘটনা ঘটেছে। আহতদের শৈলকুপা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

রবিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার চতুড়া গ্রামের মুক্তার হোসেন ও আয়ুব আলীর মধ্যে কথা-কাটাকাটির জের ধরে এ সংঘর্ষ হয়। এতে গুরুত্বর আহত অবস্থায় আয়ুব হোসেনকে ঝিনাইদহ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাত দুইটার দিকে তিনি মারা যান। নিহত আয়ুব পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক।

শৈলকুপা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান জানান, পৌরসভার চতুড়া গ্রামের বিএনপি নেতা আয়ুব হোসেনকে না জানিয়ে প্রতিবেশী মুক্তার হোসেন মেয়ে বিয়ে দেওয়া নিয়ে তর্ক বিতর্ক হয়। এরপর রাতে আয়ুব মাদকাসক্ত অবস্থায় লোকজন নিয়ে হামলা শুরু করে। এরপর মুক্তারের লোকজনও পাল্টা হামলা করে। ঢাল-সড়কি নিয়ে উভয় গ্রুপ সংঘর্ষে লিপ্ত হয়। এ ঘটনায় পুলিশ তিনজনকে আটক করেছে।

এদিকে বিএনপি নেতা আয়ুব খুনের পর পরই চতুড়া গ্রামে ব্যাপক ভাবে লুটপাট ও ভাঙচুরের ঘটনা ঘটছে। গ্রামে চরম আতঙ্ক বিরাজ করছে।

শৈলকুপা পৌর বিএনপির সভাপতি সাবেক মেয়র খরিলুর রহমান জানান, আয়ুব হোসেন পৌর সভার ২নং ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ছিলেন।

 

 

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

মোবারকগঞ্জ চিনিকলে আখ দিয়ে চরম অর্থাভাবে ৪০ হাজার মানুষ

আহমেদ নাসিম আনসারী,ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ৯ এপ্রিল -২০১৪ :2মোবারকগঞ্জ চিনি কলে আখ বিক্রির পাওনা টাকা না পেয়ে মানবেতর দিন কাটাচ্ছেন ১০ হাজার কৃষক পরিবারের ৪০ হাজার মানুষ। কৃষকেরা ব্যাংক, এনজিও, দোকানপাটের দেনা পরিশোধ করতে পারছেন না। এমনকি ছেলে-মেয়ের লেখাপড়ার খরচ যোগাতে পারছেন না তারা। নানা সমস্যায় জর্জরিত হয়ে আখ চাষ ছাড়ছেন কৃষকরা। চিনিকলে আখ দেওয়ার তিন দিনের মধ্যে কৃষকদের পাওনা পরিশোধের নিয়ম থাকলেও চলতি মৌসুমে একটি টাকাও পরিশোধ করেনি ঝিনাইদহের মোবারকগঞ্জ চিনিকল কর্তৃপক্ষ (মোচিক)। মিলজোন এলাকায় ১০ হাজার কৃষক তাদের আখের ২০ কোটি টাকা পাবে মিল কর্তৃপক্ষের কাছে। পাওনা টাকার দাবিতে আন্দোলনে নেমেছেন কৃষকেরা। করেছেন সংবাদ সম্মেলন। মিল এলাকায় বিক্ষোভ আর মানববন্ধনের ডাক দিলেও ক্ষমতাসীন দলের নেতারা তা থামিয়ে দিয়েছেন বলে অভিযোগ করেছেন কৃষকরা। চিনিকল কর্তৃপক্ষ বলছে, চিনি বিক্রি না হওয়ায় এ অচলাবস্থার সৃষ্টি হয়েছে।

চলতি মৌসুমে ১২০ কার্যদিবসে ১ লাখ ৫০ হাজার মেট্রিক টন আখ মাড়াইয়ের লক্ষ্যমাত্রা নিয়ে বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে ২৭ কোটি টাকা ঋণ নিয়ে ১৩ ডিসেম্বর আখ মাড়াই মৌসুম উদ্বোধন করে চিনিকল কর্তৃপক্ষ। সে সময় মিল এলাকায় ৮ হাজার ৫ একর জমিতে আখ থাকলেও এ বছর কৃষকরা মাত্র ৬ হাজার ৬০০ একর জমিতে আখ চাষ করছে।

মিলজোন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, মানবেতর দিন কাটছে ১০ হাজার কৃষক পরিবারের ৪০ হাজার মানুষের। কৃষক ইমদাদুল হক জানান, হাজার হাজার কৃষক তাদের সংসার চালাতে পারছেন না অর্থাভাবে। আখ চাষে সার ওষুধ, ডিজেলসহ উপকরণের দাম বাড়লেও বাড়ছে না আখের দাম। মনপ্রতি দাম মাত্র ১০০ টাকা। গত তিন বছরে এ দাম বাড়ানো হয়নি। এক বছরের অর্থাৎ বাৎসরিক ফসল আখ উৎপাদন করে মিলের কাছে বিক্রি করে চাষীরা। মোচিক আখ চাষী কল্যাণ সমিতির যুগ্ম-সম্পাদক আব্দুস সামাদ বলেন, চলতি মাড়াই মৌসুম শেষ হতে চললেও কৃষকদের দেওয়া হয়নি কোন টাকা। পাওনা ২০ কোটি টাকার দাবিতে আন্দোলন করছেন প্রান্তিক আখ চাষীরা। হতাশা আর ক্ষোভ কৃষকদের মাঝে দানা বেধেছে। চিনিকল কর্তৃপক্ষের খামখেয়ালি ব্যবস্থাপনা আর দুর্নীতিকে দায়ী করছেন তারা।

মোবারকগঞ্জ চিনিকলের ভারপ্রাপ্ত মহাব্যবস্থাপক মো. মোশারফ হোসেন বলেন, বাজার মূল্যের সঙ্গে মিল মূল্যের পার্থক্য থাকায় চিনি বিক্রি হচ্ছে না। এতে কৃষকদের বকেয়া টাকা পরিশোধ করতে সাময়িক অসুবিধা হচ্ছে। তবে চাষীদের এক তৃতীয়াংশ পাওনা দু’একদিনের মধ্যে পরিশোধ করা হবে।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail

Responsive WordPress Theme Freetheme wordpress magazine responsive freetheme wordpress news responsive freeWORDPRESS PLUGIN PREMIUM FREEDownload theme free