Home » দৈনিক শিক্ষা » জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষায় ২৪ লাখ ১০ হাজার ১৫ শিক্ষার্থী

জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষায় ২৪ লাখ ১০ হাজার ১৫ শিক্ষার্থী

ঢাকা: আগামী ১ নভেম্বর থেকে অনুষ্ঠেয় জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষায় ২৪ লাখ ১০ হাজার ১৫ জন শিক্ষার্থী অংশ নিচ্ছে।

পরীক্ষা যথাসময়ে অনুষ্ঠিত হবে, এ নিয়ে কোনো সংশয় নেই, উদ্বেগেরও কারণ নেই বলে জানিয়েছেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ।

রোববার (২৩ অক্টোবর) সচিবালয়ে মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠানিক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান শিক্ষামন্ত্রী।

এ সময় শিক্ষা সচিব সোহরাব হোসাইন, প্রাথমিক শিক্ষার মহাপরিচালক এস এম ওয়াহিদুজ্জাসানসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

শিক্ষামন্ত্রী বলেন, কোনোভাবেই জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা অনুষ্ঠানের ক্ষেত্রে দ্বিধা-দ্বন্দ্ব ও অনিশ্চিয়তায় থাকবেন না। নির্ধারিত সময়েই পরীক্ষা নিয়ে ৩০ দিনের মধ্যে ফল দেওয়া হবে। নির্ধারিত সময়েই জেএসসি পরীক্ষা নেবে শিক্ষা মন্ত্রণালয়।

তিনি জানান, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষা নেওয়ার কথা। কিন্তু ২০ অক্টোবর চিঠি পেলাম তারা এই পরীক্ষা নেবে না। এই পরীক্ষার দায়িত্ব আমাদের নিতে বলেছেন। যেহেতু তারা (গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়) অপারগতা প্রকাশ করেছেন, আমরা দায়িত্ব নিচ্ছি, এই পরীক্ষা আগের মতোই নেব। আশা করছি এটা নিয়ে কোনো সমস্যা হবে না।

নুরুল ইসলাম নাহিদ জানান, অষ্টম শ্রেণির সমাপনী পরীক্ষা নিতে বোর্ডগুলো প্রস্তুত রয়েছে। আমাদের মন্ত্রণালয়ও সম্পূর্ণ প্রস্তুত। তবে এটা ঠিক যে আমাদের চাপ বেশি পড়বে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় এমন সিদ্ধান্ত কেনো নিল, এটা সমন্বয়হীনতা কিনা জানতে চাইলে নাহিদ বলেন, কেন তারা এই সিদ্ধান্ত নিল তা নিয়ে এখনও কথা বলার সুযোগ হয়নি, তাদের সঙ্গে কথা বলব। এটা সমন্বয়হীনতা না। কেন তারা পরীক্ষা নিলো না এটা তারাই বলতে পারবে। এটা আমরা স্বাভাবিকভাবেই নিয়েছি, আমাদের যে অভিজ্ঞতা আছে, তাদের তা নাই।

এবার দেশের দুই হাজার ৭৩৪টি কেন্দ্রে জেএসসি-জেডিসিতে ২৪ লাখ ১০ হাজার ১৫ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় বসবে। এর মধ্যে ১১ লাখ ২৩ হাজার ১৬২ জান ছাত্র এবং ১২ লাখ ৮৬ হাজার ৮৫৩ জন ছাত্রী।

আট বোর্ডের অধীনে এবার জেএসসিতে ২০ লাখ ৩৫ হাজার ৫৩৪ জন এবং মাদ্রাসা বোর্ডের অধীনে জেডিসিতে ৩ লাখ ৭৪ হাজার ৪৭২ জন পরীক্ষা দেবে বলেও জানান শিক্ষামন্ত্রী।

শিক্ষামন্ত্রী আহ্বান জানান, কেউ যেন কোনোভাবেই প্রশ্ন ফাঁসের চেষ্টা না করেন। বিভ্রান্তি সৃষ্টির জন্যও মিথ্যা অপপ্রচার করে শিক্ষার্থীদের বিভ্রান্ত করবেন না। পরীক্ষা শান্তিপূর্ণভাবে নকলমুক্ত পরিবেশে অনুষ্ঠিত হবে।

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinby feather
Facebooktwitterlinkedinrssyoutubemailby feather
Advertisements

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

করোনার বন্ধে প্রাইমারির ক্লাস হবে সংসদ টিভি ও অনলাইন পোর্টালে

নিজস্ব প্রতিবেদক | ৩০ মার্চ, ২০২০ মাধ্যমিকের পর এবার সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের জন্যও ক্লাস ভিডিও করে সংসদ টিভিতে প্রচারের উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। এছাড়া শ্রেণি কার্যক্রমের এসব এসব ভিডিও সারাবছর ...

প্রাথমিকসহ সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি বাড়ছে ঈদ পর্যন্ত!

ডেস্ক,৩০ মার্চ: করোনাভাইরাসের কারণে দেশের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়সহ সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের চলমান ছুটি বাড়ানো হতে পারে। এই ছুটির মেয়াদ বাড়িয়ে ঈদুল ফিতর পর্যন্ত বাড়ানোর চিন্তাভাবনা করছে শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং মাধ্যমিক ও ...

বরখাস্ত

করোনাভাইরাস নিয়ে উসকানিমূলক বক্তব্য, ২ শিক্ষক বরখাস্ত

ডেস্ক,২৬ মার্চঃ করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ঠেকাতে সারা দেশ এখন অবরুদ্ধ। বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে সড়ক, রেল, নৌ চলাচল। সংক্রমণ ঠেকাতে পুলিশের পাশাপাশি মাঠে নেমেছে সেনাবাহিনীও। এর মধ্যেই গতকাল বুধবার ঢাকায় সড়ক ...

৯ এপ্রিল পর্যন্ত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ

ডেস্ক,২৪ মার্চঃ করোনাভাইরাস পরিস্থিতিতে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান আগামী ৯ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। আজ মঙ্গলবার শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের যৌথসভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। এর ...

hit counter