Home » টপ খবর » চার্জ দেওয়া অবস্থায় মোবাইল ব্যবহার করলে কি কোনও সমস্যা হবে?
phone charge

চার্জ দেওয়া অবস্থায় মোবাইল ব্যবহার করলে কি কোনও সমস্যা হবে?

তাহমিদ বোরহান:
ওয়েল, এক কথায় উত্তরটি হচ্ছে হ্যাঁ, আপনি ব্যবহার করতে পারবেন। আপনি চার্জে ফোন লাগিয়ে যেকোনোই নরমাল ব্যবহার করতে পারবেন। আপনি ফোন সারারাত চার্জে লাগিয়ে রাখুন, সারাদিন চার্জে লাগিয়ে রাখুন, ফোন চার্জ করতে করতে ব্যবহার করুন, ফোন উল্টা কানে ধরুন অথবা সিধা কানে ধরুন, লো ব্যাটারিতে ব্যবহার করুন, ফুল ব্যাটারিতে ব্যবহার করুন, যা ইচ্ছা তাই করুন। এতে কখনোই কোন প্রকারের ক্ষতি আপনার হবে না। আপনি সম্পূর্ণই নিরাপদ থাকবেন।

এরকম অনেক ফটো দেখছেন বা ভিডিও দেখেছেন যেখানে কারো কান ফেটে রক্ত বের হচ্ছে, কারো আবার মুখ পুড়ে গেছে সম্পূর্ণভাবে, কারো হাত পুড়ে গেছে ফোন ব্লাস্ট হয়ে ইত্যাদি। তো এগুলোর মধ্যে কিছু দুর্ঘটনা তো সত্যিই হয়েছিলো তা আমি নিজেও মানছি। কিন্তু এগুলো শুধু তখনই হয়ে থাকে যখন আপনি ফোন ঠিক মতো ব্যবহার করবেন না।

এখন ঠিক মত ফোন ব্যবহার না করা মানে কি? দেখুন ফোনের ব্যাটারি অনেক মারাত্মক একটি জিনিষ এটি আপনিও জানেন আর আমিও জানি এবং ফোন প্রস্তুতকারী কোম্পানি স্যামসাং, অ্যাপেল, এইচটিসিও এই কথা জানে। কিন্তু আপনার ফোন কখনোই একটি মারাত্মক ক্ষতিকর ডিভাইস নয়। ফোনে প্রতিটি উপাদান অনেক পরিমান মতো দেওয়া আছে যার জন্য আপনার কখনোই কোন সমস্যা হবে। আজকাল ফোন এমন একটি ডিভাইস যার উপরে আমাদের সবচাইতে বেশি নিয়ন্ত্রন থাকে।

একটি ফোন বাজারে আসার আগে ঐ ফোনটিকে অনেকগুলো টেস্ট পাস করতে হয় তবেই সে বাজারে আসতে পারে। তো এই অবস্থায় ফোন নিয়ে যতো কথা শোনা যায়, সেলফোন বুকের পকেটে রাখলে হৃদপিন্ডের ক্ষতি হতে পারে, মাথার কাছে রাখলে মস্তিস্কের সমস্যা হতে পারে ইত্যাদি গুজব গুলো সম্পূর্ণই মিথ্যা। এই কথা গুলোর কোনই ভিত্তি নাই। আজ পর্যন্ত এমন একটি গবেষণাও দেখা যায়নি যে এই বিষয় গুলো প্রমানিত করতে পারে। এই কথাগুলো ব্যাস মনগড়া। জানিনা কে যে কোথা থেকে এইসব শোনে আর গুজব রটায় তার ঠিক নেই।

বলুন তো স্যামসাং, অ্যাপেল, এইচটিসি, সোনি ইত্যাদি সহ যতো বড়বড় মোবাইল প্রস্তুতকারী কোম্পানি রয়েছে তারা কি কখনো মোবাইলের প্যাকেটে লিখে রেখেছে যে, মোবাইল ফোন লো ব্যাটারিতে ব্যবহার করা ঝুঁকিপূর্ণ বা চার্জ করার সময় ফোন ব্যবহার করবেন না?

তবে চার্জে লাগিয়ে ফোন ইউজ করার কিছু সমস্যা তৈরি করতে পারে, ১ম হচ্ছে আপনার ফোন বেশি গরম হবে, তবে গরম হয়ে পুড়ে বা ব্লাস্ট হবেনা, কিন্তু সাধারণের চেয়ে বেশি গরম হলে ফোনের ব্যাটারির আয়ু ধীরেধীরে কমে যাবে। আর আরেকটি সমস্যা হচ্ছে আপনার ফোনের চার্জ হতে সময় বেশি লাগবে! তবে চার্জে লাগিয়ে হেভি টাস্ক না করাই ভাল, তবে করলেই যে সমস্যা হবে এমনটাও না!

Facebooktwitterredditpinterestlinkedinby feather
Facebooktwitterlinkedinrssyoutubemailby feather
Advertisements

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

অনলাইনে পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা

ডেস্ক,৯ অক্টোবর: করোনাভাইরাসের কারণে চলতি বছরের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষা বাতিল হওয়ার পর পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা কীভাবে হবে তা নিয়ে আলোচনা শুরু হয়েছে। শিক্ষার্থী ভর্তি প্রক্রিয়া গুচ্ছ না কেন্দ্রীয় ...

স্কুলেও পরীক্ষা ছাড়া ‘প্রমোশনের’ চিন্তা, আগামী সপ্তাহেই সিদ্ধান্ত

ডেস্ক,৯ অক্টোবর: চলমান করোনা ভাইরাস পরিস্থিতির কারণে এরই মধ্যে এইচএসসি সহ প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী ও জেএসএসি পরীক্ষা না নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এবার স্কুলেও বার্ষিক পরীক্ষা ছাড়াই ‘অন্য কোনো উপায়ে’ ...

shikkha_barta

অস্বাভাবিক ‘সুবিধায়’ শিক্ষকদের পদোন্নতি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ৪ অক্টোবর ২০২০, এক বছরের মধ্যে কোনো জার্নালে সাতটি প্রকাশনা থাকলেই প্রভাষক থেকে সহকারী অধ্যাপক হওয়ার সুযোগ। সহযোগী অধ্যাপক হতেও রেয়াত সুবিধা। এক বছরের মধ্যে কোনো জার্নালে সাতটি ...

মাধ্যমিক

একাদশে অনলাইন ক্লাস শুরু আজ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ৪ অক্টোবর ২০২০, একাদশ শ্রেণিতে ভর্তি হওয়া শিক্ষার্থীদের ক্লাস আজ রোববার অনলাইনে শুরু হচ্ছে। কোভিড-১৯-এর কারণে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আজ সকালে ঢাকা কলেজে শিক্ষামন্ত্রী ...

hit counter